বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ ও গর্ভপাতের অভিযোগে থানার দ্বারস্থ নির্যাতিতা মডেল, আইনি বিপাকে মিঠুন পুত্র মিমো ও স্ত্রী যোগিতা বালি

389
বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ ও গর্ভপাতের অভিযোগে থানার দ্বারস্থ নির্যাতিতা মডেল, আইনি বিপাকে মিঠুন পুত্র মিমো ও স্ত্রী যোগিতা বালি 1

ওয়েব ডেস্ক : ধর্ষনের অভিযোগ আগেই ছিল। এবার আদালতের রায়ে পুনরায় আইনি বিপাকে জড়ালেন মিঠুন চক্রবর্তীর ছেলে মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমো। দিন কয়েক আগে তাঁর বিরুদ্ধে ওশিয়ারা থানায় ধর্ষণ, প্রতারণা ও জোর করে গর্ভপাতের অভিযোগ দায়ের করেছেন এক মডেল। তবে শুধুমাত্র মিমো নয়, একই সাথে ওই মডেলকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগে অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর স্ত্রী যোগিতা বালির বিরুদ্ধেও অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

এবিষয়ে ওশিওয়ারা থানার তরফে জানানো হয়েছে, চলতি মাসের ১৫ তারিখ মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমো ও মিঠুন চক্রবর্তীর স্ত্রী যোগিতার বালির বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে এক মডেল। ঘটনায় নির্যাতিতা দাবি করেন, তিনি আর মিমো ২০১৫ সাল থেকে একে অপরের সাথে সম্পর্কে ছিলেন। তাদের সম্পর্ক এতটাই গভীর ছিল যে তারা বিয়ের সিদ্ধান্তও নিয়েছিলেন। নির্যাতিতা মডেলের অভিযোগ, ২০১৫ সালে একদিন আচমকা মিমো তাঁকে বাড়িতে ডেকে পানীয়র মধ্যে কিছু মিশিয়ে দেন এবং তাঁর ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর করে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হন। শুধু তাই নয়, এরপর বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে মহাক্ষয় ওরফে মিমো ওই মডেলকে একাধিকবার ধর্ষণ করেছেন। এখানেই শেষ নয়, ঘটনায় নির্যাতিতা মডেল আরও দাবি করেন, একসময় তিনি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। সে সময় মিমোকে বিষয়টি জানালে মিমো তাঁকে গর্ভপাত করতে জোর করেন। কিন্তু তিনি তাতে রাজি না হওয়ায় মিমোর মা যোগিতা বালি তাঁকে ফোন করে রীতিমতো হুমকি দেন বলেও অভিযোগ করেন তিনি। এরপর তাকে গর্ভপাত করারে বাধ্য করা হয়।

প্রসঙ্গত, ইতিমধ্যেই বিবাহিত মিঠুন পুত্র মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমো। ২০১৮ সালে ৭ জুলাই পরিচালক, প্রযোজক সুভাষ শর্মার মেয়ে মাদালসা শর্মাকে বিয়ে করেন মহাক্ষয় চক্রবর্তী। ইতিমধ্যেই তাদের দাম্পত্য জীবন দু’বছর কেটে গিয়েছে৷ মিমোর বিয়ের দিন কয়েক আগেই অবশ্য নির্যাতিতা মডেল মিমোর বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছিলেন। কিন্তু সে সময় থানায় অভিযোগ দায়ের করলেও পুলিশ প্রথমে অভিযোগ নিতে অস্বীকার করেন। অভিযোগ দায়ের করতে সেসময় ব্যাপক হেনস্তা হতে হয়েছিল নির্যাতিতাকে৷ তবে সেসময় থানায় অভিযোগ না নেওয়ায় পরে অবশ্য তিনি দিল্লির রোহিনী আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। দিন কয়েক আগেই সেই রায় বেরিয়েছে। এরপর আদলতের নির্দেশেই এবার ওশিওয়ারা থানায় মহাক্ষয় চক্রবর্তী ও তাঁর মা যোগিতা বালির বিরুদ্ধে ওশিওয়ারা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন নির্যাতিতা মডেল।

বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ধর্ষণ ও গর্ভপাতের অভিযোগে থানার দ্বারস্থ নির্যাতিতা মডেল, আইনি বিপাকে মিঠুন পুত্র মিমো ও স্ত্রী যোগিতা বালি 2
আরও পড়ুন -  বেলদার কাছে জাতীয় সড়কে বাসের ধাক্কায় শেষ অবধি মারাই মারা গেল সেই কিশোর