করোনার করাল গ্রাসে প্রাণ হারালেন সীতারাম ইয়েচুরির ছেলে আশিস ইয়েচুরি

518
করোনার করাল গ্রাসে প্রাণ হারালেন সীতারাম ইয়েচুরির ছেলে আশিস ইয়েচুরি 1

নিউজ ডেস্ক: করোনায় প্রাণ কেড়ে নিল সীতারাম ইয়েচুরির বড় ছেলে আশিস ইয়েচুরির। মাত্র ৩৫ বছরের মারণ ভাইরাসের থাবায় চলে গেলেন আশিস। সিপিএইএমের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি ট্যুইট করে এই খবর জানিয়েছেন। ট্যুইটে তিনি লিখেছেন, গভীর দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি কোভিডে আক্রান্ত হয়ে আমার বড় ছেলে আশিস ইয়েচুরির আজ সকালে মৃত্যু হয়েছে। চিকিৎসকদের ধন্যবাদ জানাই তাঁর চিকিৎসা করার জন্য। যেসকল চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, নার্স এবং অন্যান্যরা আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন, তাঁদের সবাইকে ধন্যবাদ জানাই।’

করোনার করাল গ্রাসে প্রাণ হারালেন সীতারাম ইয়েচুরির ছেলে আশিস ইয়েচুরি 2

আশিস সামনের জুনেই ৩৫ বছর বয়সে পা দিতেন। প্রায় দুই সপ্তাহ তিনি করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন ছিলেন। প্রথমে তাঁকে গুরুগ্রামের একটি হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছিল, সেখানে থেকে তাঁকে স্থানান্তরিত করে মেদান্ত হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছিল। কিন্তু শেষ রক্ষা হল না। অবশেষে বৃহস্পতিবার সকালে সাড়ে ৫ টা নাগাদ শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন আশিস।

করোনার করাল গ্রাসে প্রাণ হারালেন সীতারাম ইয়েচুরির ছেলে আশিস ইয়েচুরি 3

আশিস চেন্নাইয়ে এশিয়ান কলেজ থেকে জার্নালিসম পড়েছেন, বিভিন্ন বেসরকারি প্রকাশনায় কর্মরত ছিলেন তিনি। এমনকি পুনে যাওয়ার আগে টাইমস অফ ইন্ডিয়া, দিল্লীতেও কর্মরত ছিলেন। তাঁর কাজের প্রতি নিষ্ঠা ও তাঁর নম্র ব্যবহার সকলকেই প্রভাবিত করত।

আশিসের এই অকাল প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ট্যুইট করে মুখ্যমন্ত্রী লেখেন, ‘আশিসের এভাবে অকালে চলে যাওয়ায় স্তম্ভিত, ব্যথিত। সীতারাম ইয়েচুরি জি ও ওনার পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাতে চাই।‘

তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্যসভার সদস্য ডেরেক ও’ব্রায়েনও তাঁর মৃত্যুতে সমবেদনা জনিয়েছেন। আশিসের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী কেজরিওয়ালও।

সিপিএমের পলিটব্যুরোর তরফে এই ঘটনায় শোক প্রকাশ করা হয়েছে। একটি বিবৃতিতে বলা হয়েছেন, ‘সীতারাম ইয়েচুরি ও ইন্দ্রাণী মজুমদারের প্রতি তাঁদের সন্তানের প্রয়াণে আমাদের গভীর সমবেদনা রয়েছে। ইয়েচুরি পরিবারের পাশে আমরা আছি’।

কংগ্রেস নেতা শশী থারুর আশিসের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে লিখেছেন, “এই খবর শুনে আমি বিধ্বস্ত। পিতা-মাতার পক্ষে সহ্য করা খুব মুশকিল। এর থেকে বড় ক্ষতি হতে পারেনা।”

এদিকে দেশ জুড়ে করোনার দাপট যেন বেড়েই চলেছে। শেষ ২৪ ঘন্টায় দেশে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লক্ষ ১৪ হাজার ৮৩৫ জন। করোনা-কালে যা বিশ্বে সর্বকালীন রেকর্ড। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ২,১০৪ জনের। পরিসংখ্যান বলছে, ভারতে প্রতি সেকেন্ডে সংক্রমিত হচ্ছেন ৪ জন এবং প্রতি মিনিটে ২১৯ জন আক্রান্ত হচ্ছেন। আর এই সংখ্যা ব্যাপক উদ্বেগের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Previous articleভোটের আগের রাতেই উত্তপ্ত চোপড়া; ভোটারের বাড়ি লক্ষ্য করে চলল গুলি, অভিযোগ অস্বীকার নির্বাচন কমিশনের
Next articleউত্তপ্ত কেতুগ্রামের রাজ্য জুড়ে ১০১ নম্বর বুথ! রাজনৈতিক হিংসার শিকার দুধের শিশুরা