টেট কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ কুন্ডু থেকে কয়লাচক্রে অভিযুক্ত জিতেন্দ্র তিওয়ারি! তৎকালদেরই পোয়া বারো বিজেপির প্রার্থী তালিকায়

408
টেট কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ কুন্ডু থেকে কয়লাচক্রে অভিযুক্ত জিতেন্দ্র তিওয়ারি! তৎকালদেরই পোয়া বারো বিজেপির প্রার্থী তালিকায় 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: কিছুদিন আগেই বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন প্রাথমিকে টেট কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ কুন্ডু। যিনি নিজের মুখেই স্বীকার করেছেন নিজের স্ত্রী ও বৌদি সহ ৪২জন দলীয় কর্মীকে চাকরি করিয়ে দিয়েছেন। এও স্বীকার করেছেন যে ২০১৪ সালে প্রাথমিকে তৃনমূল সমর্থক ছাড়া আর কারুরই চাকরি হয়নি। সেই বিশ্বজিৎ কুন্ডুকে প্রার্থী করল বিজেপি। বৃহস্পতিবার পঞ্চম দফার নির্বাচনের প্রার্থী তালিকার যে নাম ঘোষণা করেছে বিজেপি। সেখানে নাম রয়েছে বিশ্বজিৎ কুন্ডুর।

টেট কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ কুন্ডু থেকে কয়লাচক্রে অভিযুক্ত জিতেন্দ্র তিওয়ারি! তৎকালদেরই পোয়া বারো বিজেপির প্রার্থী তালিকায় 2

না, শুধুই বিশ্বজিৎ কুন্ডু নয় পাশাপাশি প্রার্থী করা হয়েছে আসানসোলের প্রাক্তন মেয়র জিতেন্দ্র প্রসাদ তিওয়ারিকে। যে তিওয়ারির বিরুদ্ধে আসানসোলের বিজেপি কর্মীরা বিক্ষোভ দেখিয়ে বলেছিলেন কয়লাচোরকে মানছিনা, মানবনা। শুধু তাই নয় এই জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে দলে নেওয়ার বিরুদ্ধে দাঁড়িয়েছিলেন আসানসোলের সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়, বিজেপির মহিলা মোর্চার সভানেত্রী অগ্নিমিত্রা পাল। এমন কি ফোঁস করেছিলেন স্বয়ং বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

টেট কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বজিৎ কুন্ডু থেকে কয়লাচক্রে অভিযুক্ত জিতেন্দ্র তিওয়ারি! তৎকালদেরই পোয়া বারো বিজেপির প্রার্থী তালিকায় 3

বিদ্রোহের চাপে মাস খানেক পিছিয়ে দেওয়া হয়েছিল তিওয়ারির যোগদান। ফের তৃনমূলেই ফিরে আসেন তিনি। কয়েকদিন আগেই আবার তাঁকে দলে নেয় বিজেপি। বৃহস্পতিবার তাঁর পুরানো কেন্দ্র সেই পান্ডবেশ্বর থেকেই প্রার্থী করল বিজেপি। গোড়া থেকেই তৎকাল এই বিজেপি হওয়া ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ আছড়ে পড়েছে দলে কিন্তু তাতেও নিজেদের সিদ্ধান্তেই অটুট রয়েছে বিজেপির নেতৃত্ব।

যোগ দিয়েই সিঙ্গুরের রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য কিংবা খড়গপুরের হিরনের মতই এদিনের তালিকায় উঠে এসেছে উলুবেড়িয়া দক্ষিণের প্রার্থী পাপিয়া অধিকারী কিংবা চন্ডিতলার প্রার্থী যশ দাসগুপ্তদের নামও। শিবপুর থেকে প্রার্থী করা হয়েছে হাওড়ার প্রাক্তন তৃনমূল মেয়র রথীন চক্রবর্তী কে। প্রার্থী হয়েছেন তৎকাল বিজেপি বৈশালী ডালমিয়া, পার্থ সারথী চট্টোপাধ্যায়, সুনীল সিং, সত্যেন্দ্রনাথ রায়, মিহির গোস্বামী সহ আরও বেশ কয়েকজন। বাদ পড়েনি কয়েকদিন আগে সিপিএম থেকে বিজেপিতে আসা শঙ্কর ঘোষও।

এদিকে এই প্রার্থী তালিকার বিরূদ্ধে ইতিমধ্যেই বিদ্রোহ শুরু হয়ে গেছে জলপাইগুড়ি শহরে। দলের পুরানো নেতা দীপেন প্রামানিককে প্রার্থী না করে সৌজিত সিনহাকে প্রার্থী করায় শহরের কদমতলা দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর করে আগুন লাগিয়ে দিয়েছে দলীয় কর্মীরাই। অন্যদিকে প্রার্থী তালিকা ঘোষনার পরই প্রার্থী হতে আপত্তি জানিয়েছেন চৌরঙ্গী কেন্দ্র থেকে তালিকায় থাকা সৌমেন মিত্র জায়া শিখা মিত্র এবং কামারহাটির জন্য নাম ঘোষণা হওয়া তরুণ সাহা।

Previous articleপ্রার্থী তালিকা ঘোষনার পরেই বিক্ষোভের ঢেউ জলপাইগুড়ির বিজেপিতে, দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর করল কর্মীরাই
Next articleমেদিনীপুর শহরে দাউ দাউ করে জ্বলে উঠল মুখ্যমন্ত্রীর ছবি লাগানো গাড়ি, গ্যাস থেকেই বিপত্তি অনুমান