বৌ পেটানোয় অভিযুক্ত সেই প্রার্থী বদলের দাবীতে এবারে অনশনে বসলেন বিজেপি কর্মীরা

151
বৌ পেটানোয় অভিযুক্ত সেই প্রার্থী বদলের দাবীতে এবারে অনশনে বসলেন বিজেপি কর্মীরা 1

নিজস্ব সংবাদদাতা, উত্তর দিনাজপুর: প্রার্থী বদলের দাবীতে এবার আর বিক্ষোভ নয়, সোজা অনশনের পথে হাঁটলেন বিজেপি কর্মীরা। কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়কে বদলের দাবীতে কালিয়াগঞ্জের সুকান্ত মোড়ে শনিবার সকাল থেকে অস্থায়ী মঞ্চ বেঁধে অনশনে বসেছেন বিজেপি কর্মীরা। যতক্ষণ একজন স্থানীয় ও স্বচ্ছ ভাবমূর্তি সম্পন্ন দলীয় কাউকে প্রার্থী করতে হবে, নাহলে তাদের অনশন জারি থাকবে বলে জানা অনশনকারীরা।

কালিয়াগঞ্জ বিজেপি কনভেনার রানা প্রতাপ ঘোষ জানান, তারা জেলা থেকে শুরু করে কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে প্রার্থী বদলের কথা বারবার জানালেও কোনও ফল মেলেনি। তিনি এও জানান, এই প্রার্থীকে নিয়ে বিজেপির জেতা সম্ভব নয়। রাজ্য বা কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব এই ব্যাপারে কোনও হেলদোল দেখাচ্ছেন না বলেই অভিযোগ করেন তিনি। তাই বাধ্য হয়ে তারা অনশনের পথ বেছে নিয়েছেন এবং এই মুহূর্তে তিনি (রানা প্রতাপ ঘোষ), গৌতম বিশ্বাস এবং তন্ময় বিশ্বাস জল স্পর্শ করবেন না বলে সিদ্ধান্ত নিয়েই অনশনে আমরণ অনশনে বসেছেন বলে জানান। তিনি এও দাবী করেন, যতক্ষণ একজন স্থানীয় ও স্বচ্ছ ভাবমূর্তি সম্পন্ন দলীয় কাউকে প্রার্থী করতে হবে, নাহলে তাদের অনশন জারি থাকবে বলেও জানান তিনি।

বৌ পেটানোয় অভিযুক্ত সেই প্রার্থী বদলের দাবীতে এবারে অনশনে বসলেন বিজেপি কর্মীরা 2

প্রসঙ্গত, গত ১৮ তারিখ বিজেপি প্রার্থী তালিকা ঘোষণার পর কালিয়াগঞ্জ কেন্দ্রে সৌমেন রায়য়ের নাম দেখতে পেয়েই বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন বিজেপি কর্মীরা। দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর এবং আগুন জ্বালিয়ে বিক্ষোভ দেখানো হয়, শীর্ষ নেতৃত্বে ছবিতে কালিও দিয়ে দেন তারা। উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রে প্রার্থী করা হয়েছে সৌমেন রায়কে। আর এই সৌমেন রায়ের বিরুদ্ধেই একাধিক অভিযোগ তুলেছেন তারই স্ত্রীই। স্বাভাবিক ভাবেই প্রার্থীর বিরুদ্ধে তার স্ত্রী চরিত্র নিয়ে প্রশ্ন তোলায় কার্যকর্তাদের মধ্যে ব্যপক প্রভাব পড়েছে কালিয়াগঞ্জের মানুষ শান্ত প্রকৃতির মানুষের মনে। এমনকি উত্তর দিনাজপুরের বিজেপি সভাপতি বিশ্বজিৎ লাহিড়ীও প্রাথমিক ভাবে কালিয়াগঞ্জের প্রার্থীকে চিনতে পারেন না।

এমনকি, দলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে বৈঠক করতে কালিয়াগঞ্জ কেন্দ্রের প্রার্থী সৌমেন রায়কে সঙ্গে নিয়ে যেতেই বিজেপির জেলা শীর্ষ নেতৃত্বের কপালে জুটল শারীরিক ও মানসিক হেনস্তা। কাণ্ড দেখে প্রচারের যাওয়ার আগেই পালিয়ে বাঁচেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়। এছাড়াও বুধবার সকাল থেকেই কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপি মহিলা মোর্চার নেত্রী থেকে শুরু করে বিজেপি কর্মী সমর্থকরা প্রার্থী বদলের দাবীতে কালিয়াগঞ্জ শহরের বিবেকানন্দ মোড়ে রায়গঞ্জ বালুরঘাট রাজ্য সড়ক আগুন জ্বালিয়ে পথ অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখান। তারা অভিযোগ করেন, “বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব একজন চরিত্রহীন, বহিরাগত ব্যক্তিকে উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জে প্রার্থী করেছে। ফলে এলাকার মহিলারা সুরক্ষিত থাকবে না।“ এমনকি কালিয়াগঞ্জে বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায় প্রচারে আসলে তাকে জুতো এবং ঝাঁটাপেটা করা হবে বলেও তারা জানিয়েছিলেন। এত কিছুর পরেও প্রার্থী বদলের কোন আশা না দেখে অবশেষে অনশনে বসেন বিজেপি কর্মীরা। উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবারেই প্রার্থী নিয়ে বিক্ষোভ, শীর্ষ নেতৃত্বের ছবিতে কালি,দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর ইত্যাদি ঘটনার জেরে ৬ হেভিওয়েট বিজেপি নেতাকে শোকজ করেছে বিজেপি, সেই তালিকায় নাম রয়েছে অনশনকারী রানা প্রতাপ ঘোষের নামও।