শিশুদের নিয়ে সতর্ক হোন , তামিলনাড়ুতে করোনা আক্রান্ত ১২১ শিশু, তথ্য প্রকাশ করল সরকার

837
Advertisement

নিজস্ব সংবাদদাতা:    বিশেষজ্ঞরা বলছেন অন্য অন্যান্য ক্ষেত্রের মতই করোনা অতিমারিকে নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য দরকার আরও নিবিড় পরিসংখ্যায়ন। প্রতিটি ক্ষেত্রকে আলাদা আলাদা করে চিহ্নিত করা সম্ভব একমাত্র পরিসংখ্যানের মাধ্যমেই। আর সেটা জানার পরই আলাদা আলাদা ভাবে করোনার বিরুদ্ধে লড়াই সম্ভব। কিন্তু সঠিকভাবে মাইক্রো স্তরে সেই কাজ সব রাজ্যে হচ্ছেনা বা হলেও তা প্রকাশ্যে আসছেনা। এই ধরনের পরিসংখ্যান সামনে এলে মানুষ নিজের মত করেও সাবধান, সতর্ক, সচেতন হতে পারে। সম্প্রতি তামিলনাড়ু সরকারের প্রকাশিত একটি পরিসংখ্যান বলছে    এবার শিশুদের প্রতি আরও যত্ন নেওয়ার সময় এসে গেছে। খামখেয়ালি আবহাওয়ায় শিশুরা যেন অসুস্থ হয়ে পড়ে শরীরের প্রতিষেধক ক্ষমতা হারিয়ে ফেলে তাই অধিক কেয়ার নিতে হবে তাদের প্রতি এমনই জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

Advertisement

তামিলনাড়ু সরকারের প্রকাশিত করোনা সংক্রান্ত তথ্য বলছে সে রাজ্যের ১২১জন নাবালক কোভিড-১৯ পজিটিভ। মঙ্গলবারই প্রকাশিত ওই বুলেটিন থেকে জানা যাচ্ছে ১২বছরের নিচে ওই ১২১জন আক্রান্ত সমেত সে রাজ্যে মোট ২০৫৮ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন।
এই ২০৫৮ জনের মধ্যে ১৩৯২ পুরুষ ও ৬৬৬ জন মহিলা রয়েছেন। গত ২৪ ঘন্টায় ১০৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন এবং মোট আক্রান্তের মধ্যে ৬৭৩ জনই চেন্নাই মহানগরীর। ২৮এপ্রিল পর্যন্ত ১,১৩৮জন সুস্থ হয়েছেন যার মধ্যে গত ২৪ঘন্টায় ২৭জন করোনা মুক্ত হয়ে বাড়ি ফিরেছেন।

Advertisement
Advertisement

সোমবার থেকে মঙ্গলবারের মধ্যে ১জন মারা গিয়েছেন এবং রাজ্যের মোট মৃতের সংখ্যা ২৫জন। আক্রান্তের নিরিখে গোটা রাজ্যকে লাল, কমলা ও সবুজ এই তিনটি জোনে ভাগ করা হয়েছে এবং দুর্ভাগ্য বশতঃ রাজ্যের একটি মাত্র জেলাই সবুজ জোনের মধ্যে রয়েছে। সেই কৃষ্ণাগিরি জেলা থেকে গত ২৮ দিনে কোনও নতুন আক্রান্তের খবর নেই।
এ রাজ্যের ৭টি জেলা কমলা জোনের মধ্যে পড়েছে যেখানে জেলা প্রতি আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ বা তার কম। আর ১৫ উর্ধে আক্রান্ত হয়েছে এমন ২৯টি জেলাই লাল জোনের মধ্যে।

মঙ্গলবার অবধি রাজ্যে মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১,০১,৮৭৪টি যা করেছে ৩০টি সরকারি ও ১১টি বেসরকারি ল্যাবরেটরি। এরমধ্যেই ২,০৫৮ জন পজিটিভ ও ৯৭,৯০৮ নেগেটিভ হয়েছে। ১,৯০৮ টি নমুনা পরীক্ষার স্তরে রয়েছে। ৮,৬৮৫টি নমুনা দ্বিতীয় বারের জন্য করা পরীক্ষা হয়েছে। ২৮ এপ্রিল অবধি ১,১৩৮ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরায় রাজ্যে মোট কোভিড পজিটিভের সংখ্যা এখন ৯২০ জন।
.