ভারতে ৭হাজার ছাড়ালো আক্রান্তের সংখ্যা, করোনায় রেকর্ড ভেঙে দেশে ২৪ঘন্টায় নতুন আক্রান্ত ১০৩৫, মহারাষ্ট্র একাই ৪৩৯

159
Advertisement

নিজস্ব সংবাদদাতা: লকডাউন বাড়ানো হবে কিনা সেই নিয়ে রাজ্যের মূখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সের দিনেই, শনিবার আশংকার পরিমান বাড়িয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে কোভিড-১৯ পজিটিভ ধরা পড়ল ১০৩৫ জনের। আর এটাই বুঝিয়ে দিল যে, লকডাউন স্বত্তেও দেশে আক্রান্তের সংখ্যায় রাশ পড়েনি এখনও। ফলে আগামী ১৪ই এপ্রিল যে লকডাউন প্রত্যাহৃত হচ্ছেনা তা প্রায় নিশ্চিত। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান দপ্তরের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী এ যাবৎ কালের প্রদত্ত হিসাব বলছে ২৪ঘন্টার নিরিখে দেশ জুড়ে সর্বাধিক আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৮৯৬। শনিবার সেই রেকর্ড ভেঙে গেল।

Advertisement

এদিন রাজ্যগুলির হিসাবে যথারীতি খারাপ অবস্থায় রয়েছে বানিজ্য নগরীর দেশ মহারাষ্ট্র । শুধুমাত্র মহারাষ্ট্রেই নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৩৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ৪০ জনের মৃত্যুও হয়েছে। এর ফলে মৃতের সংখ্যা এখন ২৩৯ জন। আর সারা দেশে শনিবার করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ হাজার ৪৪৭ জন। এরমধ্যে ৬৪৩ জন সুস্থ হওয়ায় দেশে এই মুহূর্তে আক্রান্তের সংখ্যা ৬,৫৫৬জন ।
কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের হিসাব অনুযায়ী, এ রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা মোট ১১৬। এর মধ্যে ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। রাজ্যের হিসাব অনুযায়ী অবশ্য এ রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ৮৯।

Advertisement
Advertisement

কোভিড-১৯ বিপদের ঘন্টা যেন বাজাচ্ছে মহারাষ্ট্রতেই বেশি। বর্তমানে ভারতে করোনার এপিসেন্টার বানিজ্য নগরীর দেশ। উদ্বেগ বাড়িয়ে ওই রাজ্যে আক্রান্তর সংখ্যা ১৫৭৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ১১০ জনের। অর্থাৎ দেশের মোট মৃত্যুর ৪৬% হয়েছে মহারাষ্ট্রতেই। শনিবারও দেখা গেছে গত কয়েকদিনের ধারাবাহিকতা বজায় রেখেই বানিজ্য নগরীর পরেই রয়েছে তমিলনাডু যেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ৯১১।আর তার ঠিক পরেই রয়েছে রাজধানী দিল্লি। সেখানে বর্তমান আক্রান্তের সংখ্যা ৯০৩ জন। রাজস্থান ৫৫৩ ও মধ্যপ্রদেশেও আক্রান্তের সংখ্যা গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭৬ জন বেড়ে এখন হয়েছে ৪৩৫। নতুন ২০জন আক্রান্তকে নিয়ে উত্তরপ্রদেশে আক্রান্তের সংখ্যা হয়েছে ৪৩১।জম্মু-কাশ্মীরেও করোনা আক্রান্তের সংখ্যা এখন ২০৭।

তবে এরই মধ্যে আশার আলো দেখিয়েছে কেরল। সংক্রমনে রাশ টেনে সে রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ৩৬৪। দেশের উত্তরপূর্ব রাজ্যগুলি এখনও যেন আটকেই রেখেছে করোনাকে। সিকিম, মেঘালয় ও নাগাল্যান্ডে। সেখানে এখনও পর্যন্ত কোনও করোনা আক্রান্ত ধরা পড়েনি। অরুণাচল প্রদেশ ও ত্রিপুরায় করোনায় আক্রান্ত এখনও অবধি ১জনই। লকডাউনের ১৭দিনের মাথায় দেশের যুগ্ম স্বাস্থ্য সচিব লব আগরওয়াল এই রিপোর্ট পওয়ার পরও অবশ্য জাতিকে আশ্বস্ত করে বলেছেন, ”দেশ এখনও গোষ্টি সংক্রমনের মধ্যে ঢুকে যায়নি তাই আতঙ্কিত হওয়ার কোনও কারন নেই।”