রাজ্য সরকারের রেশনের বরাদ্দ কমতেই মাঠে নামলেন দিলীপ-সৌমিত্র, সরগরম রাজ্য রাজনীতি

291
রাজ্য সরকারের রেশনের বরাদ্দ কমতেই মাঠে নামলেন দিলীপ-সৌমিত্র, সরগরম রাজ্য রাজনীতি 1
রাজ্য সরকারের রেশনের বরাদ্দ কমতেই মাঠে নামলেন দিলীপ-সৌমিত্র, সরগরম রাজ্য রাজনীতি 2

ওয়েব ডেস্ক : মাস দুয়েক আগেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আগামী বছর জুন মাস পর্যন্ত বিনামূল্যে রেশন দেওয়ার প্রতিশ্রুতি রেখেছিলেন। কিন্তু সেই প্রতিশ্রুতির মাস খানেক কাটতে না কাটতেই চলতি মাসে রেশনে বরাদ্দ কমাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার। রাজ্য খাদ্য দফতর সূত্রে খবর, এবার থেকে কার্ড পিছু মাসে ৫ কেজি চালের পরিবর্তে তা কমিয়ে ১ কিলোগ্রাম করে মিলবে চাল। সেই সাথে মিলবে কার্ড পিছু ১ কিলোগ্রাম গম। চলতি বছর আগস্ট মাস থেকে ২০২১ সালের জুন মাস পর্যন্ত বিনামূল্যে মিলবে এতটুকুই।

গত ৩০ জুন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির তরফে চলতি বছর নভেম্বর মাস পর্যন্ত দেশবাসীকে কার্ড পিছু বিনামূল্যে ৫ কিলোগ্রাম করে চাল দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এরপর প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার কয়েকঘন্টার মধ্যেই পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেন, ২০২১ সালের জুন মাস পর্যন্ত প্রত্যেক রাজ্যবাসীকে রাজ্য সরকারের তরফে বিনামূল্যে রেশন দেওয়া হবে৷ কিন্তু ঠিক তার পরেই মাসেই রেশনের পরিমান কয়েকগুন কমিয়ে দিল রাজ্য সরকার। এতদিন কার্ড পিছু ২ কেজি করে চাল ও ৩ কেজি করে আটা দেওয়া হত। কিন্তু চলতি মাসে তা কমিয়ে কার্ড পিছু ১ কেজি করে চাল ও ১ কেজি করে গম দেওয়া হচ্ছে। এর জেরে রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন অনেকেই।

রাজ্য সরকারের রেশনের বরাদ্দ কমতেই মাঠে নামলেন দিলীপ-সৌমিত্র, সরগরম রাজ্য রাজনীতি 3

এমনকি গত ২১ জুলাই তৃণমূলের শহিদ দিবসের ভার্চুয়াল সভায় এক কদম এগিয়ে মমতা বলেন, “ক্ষমতায় ফিরলে আজীবন বিনামূল্যে রেশনের ব্যবস্থা করবে সরকার।” এদিকে দলনেত্রীর ভার্চুয়াল জনসভার দিন কয়েকের মধ্যেই খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক জানান, অগাস্টেই রাজ্যবাসীকে চালের সঙ্গে কিছু পরিমাণে গম দেওয়া হবে। তিনি বলেন, “গুদামে টন টন গম পড়ে পড়ে নষ্ট হচ্ছে। সেগুলি এখনই বিলি না করলে আর খাওয়ার যোগ্য থাকবে না।”

এদিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিনামূল্যে রেশনের ঘোষণার দিন কয়েকের মধ্যে খাদ্য দফতরের প্রকাশিত বিজ্ঞাপনে দেখা যাচ্ছে প্রতিমাসে কার্ডপিছু ৫ কিলোগ্রাম চালের বরাদ্দ কমিয়ে করা হয়েছে ১ কিলোগ্রাম। সঙ্গে ১ কিলোগ্রাম করে গম মিলবে বলে জানানো হয়েছে বিজ্ঞাপনে। ফলে রেশনের বরাদ্দ কমানোয় স্বাভাবিকভাবেই বিরোধীদের রোষের মুখে পড়ছে সরকার। এই বিজ্ঞাপন নজরে আসতেই বিষ্ণুপুরের বিজেপি সাংসদ সৌমিত্র খাঁ তাঁর টুইটারে লিখেছেন, “ফ্রি তে রেশন দেবেন বলেছিলেন দিদি। ৫ কেজি থেকে ১ কেজি করে দেওয়া হল।”

এবিষয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন,”করোনাকালে যেখানে প্রধানমন্ত্রী ৬ মাস রেশন ফ্রি, গ্যাস ফ্রি দিচ্ছে, চাল-ডাল-তেল-নুন, রেশন ফ্রি দিচ্ছে, আবার বাজার করার জন্য ৫০০ টাকা করে দিচ্ছে, এছাড়াও বিভিন্ন ভাবে সাহায্য করছে, তখন কিনা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী রেশনের চালের পরিমাণ কমিয়ে দিলেন। তিনি তো আগামী জুন অবধি ফ্রিতে রেশন দেওয়ার কথা বলেছিলেন, কিন্তু এখন সেসব গেল কোথায়?এদিন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ খানিকটা ব্যঙ্গের সুরেই বললেন, “রাজ্যের মানুষেরা কি সব বড়লোক হয়ে গেছেন? রেশনের বরাদ্দ চাল কমিয়ে দেওয়া হল।”