বুলবুলের প্রভাবে বিকল বিদ্যুতের সংযোগ ঠিক করতে গিয়ে নারায়নগড়ে মৃত পরিবারে একমাত্র অবলম্বন তরতাজা যুবক

162
বুলবুলের প্রভাবে বিকল বিদ্যুতের সংযোগ ঠিক করতে গিয়ে নারায়নগড়ে মৃত পরিবারে একমাত্র অবলম্বন তরতাজা যুবক 1
বুলবুলের প্রভাবে বিকল বিদ্যুতের সংযোগ ঠিক করতে গিয়ে নারায়নগড়ে মৃত পরিবারে একমাত্র অবলম্বন তরতাজা যুবক 2

নিজস্ব সংবাদদাতা: মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় পশ্চিম মেদিনীপুরের নারায়নগড়ে মৃত্যু হল ৩২বছর বয়সী এক যুবকের। এলাকায় পরোপকারী বলে পরিচিত যুবকের মৃত্যুর ঘটনায় রবিবার সন্ধ্যায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

বুলবুলের প্রভাবে বিকল বিদ্যুতের সংযোগ ঠিক করতে গিয়ে নারায়নগড়ে মৃত পরিবারে একমাত্র অবলম্বন তরতাজা যুবক 3

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
ঘটনাটি ঘটেছে নারায়নগড় থানা এলাকার কুনারপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের জগন্নাথপুর গ্রামে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, বুলবুলের প্রভাবে শনিবার রাত থেকেই বিদ্যুৎ বিছিন্ন হয়ে যায় বহু গ্রাম যার মধ্যে জগন্নাথপুরও ছিল। দুপুরের পর বিদ্যুৎ কর্মীদের প্রচেষ্টায় ধিরে ধিরে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে থাকে। বিদুৎ ফিরে আসে জগন্নাথপুর গ্রামেও। যদিও ওই গ্রামের গোপাল মাঝি ও আরও কয়েকটি পরিবারে বিদ্যুৎ ছিলনা।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
পরিবার ও প্রতিবেশিদের প্রয়োজনে গোপাল মাঝির বছর ৩২য়ের ছেলে রতিশ বিদ্যুতের খুঁটিতে ওঠে বিষয়টি দেখার জন্য। রতিশ এর আগেও এভাবে খুঁটিতে উঠে বিদুৎ পারিবহন সচল করেছে। সেই অভিজ্ঞতা থেকেই রবিবার সন্ধ্যা নাগাদ সে বাড়ির সামনের খুঁটিতে উঠেছিল। তখনই অসাবধানতা বশত বিদ্যুতের সংস্পর্শে চলে আসে রতিশ এবং ছিটকে ২০ফুট নিচে পড়ে যায়।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
সাথে সাথেই স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাওয়া হয় রতিশকে কিন্তু ততক্ষনে প্রান হারিয়েছে সে। ঘটনার পরই শোকে  ভেঙে পড়ে পরিবার। বছর তিনেক ও দেড় বছরের দুটি সন্তান রয়েছে তাঁর। ঘন ঘন মূর্ছা যাচ্ছেন রতিশের স্ত্রী। একমাত্র পুত্রের মৃত্যুতে শোকে পাথর হয়ে গেছেন রতিশের বাবা এবং মা।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
কুনারপুর অঞ্চলের পঞ্চায়েত সদস্য চন্দন দাস জানিয়েছেন, ”শুধু জগন্নাথপুর নয়, এই মর্মান্তিক খবর স্তব্ধ করে দিয়েছে আমাদের মত পড়শি গ্রামগুলিকেও। কারন তরতাজা প্রান চঞ্চল ওই যুবক সবারই বিপদে আপদে ঝাঁপিয়ে পড়ত। কৃষিজীবি পরিবারের একমাত্র অবলম্বন ওই ছেলেটাই ছিল । এই দুঃখজনক ঘটনায় কিছু বলার ভাষাই হারিয়ে ফেলেছি।”

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
ঘটনার খবর দেওয়া হয়েছে নারায়নগড় থানাকে। এলাকায় রওনা দিয়েছে পুলিশ । আগামীকাল ময়নাতদন্তের জন্য দেহ পাঠানো হবে খড়গপুর মহকুমা হাসপাতালে।