মোবাইল গেমে আপত্তি বাবা-মার, ডেবরায় গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী

228
মোবাইল গেমে আপত্তি বাবা-মার, ডেবরায়  গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী 1
মোবাইল গেমে আপত্তি বাবা-মার, ডেবরায়  গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী 2
মোবাইল গেমে আপত্তি বাবা-মার, ডেবরায়  গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী 3

নিজস্ব সংবাদদাতা: আর দিন কতক পরেই শুরু হতে চলেছে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা কিন্তু মোবাইলে গেম খেলার বিরতি নেই ১৭বছরের মেয়ের। বইয়ের বদলে দিন রাত মোবাইলেই মুখ গুঁজে পড়ে থাকে। আর তাই নিয়ে বাবা মা  বকাবকি করাতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী।

মোবাইল গেমে আপত্তি বাবা-মার, ডেবরায়  গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীনী 4

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
বুধবার বেলা ১টা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে ডেবরা থানার জলিমান্দা এলাকার বইচা গ্রাম। পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন ১২ই মার্চ শুরু হতে চলেছে। কিন্তু পড়াশুনা বাদ দিয়ে মোবাইল নিয়ে পড়ে থাকত উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী সুমনা পাত্র। বুধবার বেলার দিকে তাকে  মোবাইলে গেম খেলতে দেখে বকাবকি করে বাবা। বিষয়টি নিয়ে মাও  বকাবকি করে।  এরপরই মোবাইল রেখে দিয়ে  নিজের ঘরে ঢুকে পড়ে সে। পরিবারের সদস্যরা ভেবে ছিল অভিমানে ঘরের ভেতরে চলে গেছে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
কিন্তু বেলা গড়িয়ে গেলেও মেয়ে দরজা খুলে বেরিয়ে না আসায় পরিবারের লোকেরা দরজা ধাক্কাধাক্কি করে দরজা খুলে দেখে গলায় দড়ি দিয়ে ঝুলছে সুমনা। খবর পেয়ে ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। দেহটি নিয়ে আসা হয় ডেবরা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে। এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
অন্য আরেকটি পৃথক পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার ডেবরা ব্লকের বালিচক গার্লস স্কুলের মাধ্যমিক কেন্দ্রে অসুস্থ হয়ে পড়ে এক পরীক্ষার্থী। ডেবরা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে চিকিৎসা ধীন। পরীক্ষার্থী সঙ্গীতা দাস ঝাঁঝিয়া গোপালচন্দ্র হাইস্কুলের ছাত্রী। বাড়ী ডেবরা ব্লকের কাজীচক গ্রাম।রাত থেকেই বেশ কয়েকবার বমি হয়েছিল তার । বমি হয় সকালেও । পরীক্ষা হলে বসার পরেই অসুস্থ হয়ে পড়ে সঙ্গীতা। তারপরেই থাকে ডেবরা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসার পর হাসপাতালেই  পরীক্ষা দিয়েছে বলে জানিয়েছে  সঙ্গীতার পরিবার।