“সিপিএমকে যে ভোট দেবে, তার হাত কেটে দেবো,” তৃণমূল নেতার ভাইরাল ভিডিও ঘিরে রাজনৈতিক তরজা

286
“সিপিএমকে যে ভোট দেবে, তার হাত কেটে দেবো,” তৃণমূল নেতার ভাইরাল ভিডিও ঘিরে রাজনৈতিক তরজা 1

নিউজ ডেস্ক: “সিপিএমকে যে ভোট দেবে, তার হাত কেটে দেবো,” তৃণমূল নেতার হুমকি দেওয়া এই ভিডিও ঘিরে তোলপাড় রাজ্য-রাজনীতি। বীরভূমের নানুরের তৃণমূল নেতা নূরমান শেখের এই ভিডিও প্রকাশ্যে এসেছে। এমনকি নির্বাচন কমিশনের আধিকারিকদের সামনেই এই হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ ওঠে।

নির্বাচন কমিশনের (Election Commssion) আধিকারিকদের সামনেই সংযুক্ত মোর্চা মনোনীত সিপিএম প্রার্থীকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠল তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে। সিপিএমে ভোট দিলে হাত কেটে দেওয়ার হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ। ঘটনায় স্বাভাবিকভাবেই তুমুল বিতর্ক তৈরি হয়েছে।
জানা গিয়েছে, প্রতিদিনের বুধবারও বীরভূমের নানুর বিধানসভার আগত্তর গ্রামে নির্বাচনী প্রচারে গিয়েছিলেন সংযুক্ত মোর্চার বাম প্রার্থী শ্যামলী প্রধান। গ্রামে ঢুকতেই তৃণমূলের বিক্ষোভের মুখে পড়েন বাম প্রার্থী। অভিযোগ, সেই সময় তৃণমূল পরিচালিত নানুর গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যা জুলি বিবির স্বামী তৃণমূল নেতা নূরমান শেখ তাঁর লোকজনদের নিয়ে শ্যামলী প্রধানকে ঘিরে ফেলে। হুমকি দিয়ে বলা হয়, “ভোটের সময় ভোট চাইতে চলে এসেছেন। আপনি পাঁচ বছরের বিধায়ক, কোথায় ছিলেন এই পাঁচ বছর? যে রাস্তা দিয়ে আপনি গ্রামে ঢুকলেন প্রচার করতে এটি তৃণমূলের সরকারের করা। আপনি পাঁচ বছর কী করেছেন?”

“সিপিএমকে যে ভোট দেবে, তার হাত কেটে দেবো,” তৃণমূল নেতার ভাইরাল ভিডিও ঘিরে রাজনৈতিক তরজা 2

এমন পরিস্থিতিতে নূরমান শেখকে বুঝিয়ে পরিস্থিতি আয়ত্তে আনার চেষ্টা করেন শ্যামলী। কিন্তু তাতে কোনও কাজ হয়নি। একসময় নাছোড়বান্দা তৃণমূল নেতা হুমকি দেন হাত কেটে নেওয়ার। বলেন, “ভোটের সময় উস্কানি দিতে চলে এসেছেন। এখানে সিপিএমকে কেউ একটাও ভোট দেবে না, যে ভোট দেবে তার হাত কেটে দেবো।” তৃণমূল নেতার সাফাই, সংযুক্ত মোর্চার প্রার্থীর সঙ্গে থাকা একজনের কথার পরিপ্রেক্ষিতে মুখ ফস্কে বেরিয়ে গিয়েছে।

তবে ইতিমধ্যেই সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে, যা ঘিরে বিতর্কের ঝড় উঠেছে। তৃণমূল নেতার আচরণের তীব্র নিন্দা করেছে ওয়াকিবহাল মহল।
পাশাপাশি বিজেপি নেতা শুভেন্দুর প্রতিক্রিয়া, ২রা মেয়ের পর হাত কেটে নেওয়ার সুযোগ থাকবে না। প্রচারে বাধা দেওয়ার অধিকার কার নেই মন্তব্য বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মন্ডলের।

প্রসঙ্গত, এর আগেও তৃণমূল নেতাদের কয়েকটি ভিডিও সোশ্যাল মাধ্যমে ভাইরাল হয়, যেখানে টাকা দিয়ে ভোট কেনার অভিযোগ ওঠে। এমনকি বিজেপি প্রার্থীরও এমন ভিডিও প্রকাশ্যে আসে, যদিও সকল ক্ষেত্রেই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। আর এবার পঞ্চম দফা ভোটের আগে আবারও হাত কেটে নেওয়ার হুমকির ভিডিও ভাইরাল হল নানুরের তৃণমূল নেতার।

কোন ভিডিওর সত্যতা যাচাই করেনি দ্য খড়গপুর পোস্ট।

Previous articleকরোনায় প্রাণ গেল কংগ্রেস প্রার্থী রেজাউল হকের! করোনার এই ভয়ঙ্কর পরিস্থিতিতে প্রচার চালানো রাজনৈতিক দলের হুঁশ ফিরবে কি?
Next articleখুনি দাঁতলের কৌশলে পরাজিত হুলা পার্টির সদস্যরা! হাতি তাড়াতে গিয়ে প্রাণ হারালেন গোপীবল্লভপুরের যুবক দীপক