“এক পায়ে এক শটেই ওদের মাঠের বাইরে বের করে দেব”- পুরুলিয়ার জনসভা থেকে বিজেপিকে হুঁশিয়ারি মমতার

188
"এক পায়ে এক শটেই ওদের মাঠের বাইরে বের করে দেব"- পুরুলিয়ার জনসভা থেকে বিজেপিকে হুঁশিয়ারি মমতার 1

অশ্লেষা চৌধুরী: বিজেপি ভাবছিল মমতার তো পায়ে মেরেছি আমরা। ওকে চোট করে দিয়েছি, বেরোতে পারবে না। আমাকে তো চেনে না। আমি এক পায়ে যা শট মারতে পারি না, ওদের এক শটে মাঠের বাইরে বের করে দেব। ওরা আমাকে চেনে না। আমি লড়াই করা লোক। আমাকে অনেক মেরেছে। আমার মাথা দিয়ে গুলি বেরিয়ে গিয়েছে। “ পুরুলিয়ার সভা থেকে বিজেপিকে হুঁশিয়ারি মমতার।

মঙ্গলবার পুরুলিয়ার পারা, কাশীপুর ও রঘুনাথপুর বিধানসভায় নির্বাচনী প্রচার করেন তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিনের জনসভা থেকে বিজেপিকে দৈত্যের দল, দানবের দল বলেও কটাক্ষ করেন তৃণমূল সুপ্রিমো। মমতা বলেন, “বিজেপি মিরজাফরের দল, গদ্দারের দল, দানবের দল। গরিব মানুষের দল নয়। মমতা বলেন, অসমের ম্যানিফেস্টো, ত্রিপুরার ম্যানিফেস্টো নিয়ে আসুন। শিক্ষক ছাঁটাই হচ্ছে। বিজেপি থেকে সাবধান। স্টেনগান থেকে সাবধান। দানব থেকে সাবধান। দৈত্য থেকে সাবধান। দুর্যোধন থেকে সাবধান। দুঃশাসন থেকে সাবধান।“

"এক পায়ে এক শটেই ওদের মাঠের বাইরে বের করে দেব"- পুরুলিয়ার জনসভা থেকে বিজেপিকে হুঁশিয়ারি মমতার 2

বিজেপিকে হুঁশিয়ারি দিয়ে মমতা বলেন, আমি এক পায়ে যা শট মারতে পারি না, ওদের এক শটে মাঠের বাইরে বের করে দেব। ওরা আমাকে চেনে না। আমি লড়াই করা লোক। আমাকে অনেক মেরেছে। আমার মাথা দিয়ে গুলি বেরিয়ে গিয়েছে।’

মমতা ভোট চুরি নিয়েও আশঙ্কা প্রকাশ করেন এদিন। তিনি পরামর্শ দেন, কেউ যেন বিজেপির ফাঁদে পা দেয়। তিনি এজেন্টদের পরামর্শ দেন । বলেন, কেউ কিছু দিলে খাবেন না। মমতা এজেন্টদের সাবধান করে আরও বলেন, ‘বিরিয়ানিতে ওষুধ মিশিয়ে দিতে পারে। বাড়িতে মাকে বলবেন রুটি তরকারি করে দিতে। কিন্তু বিজেপির হাতের খাবার খাবেন না। মাথা উঁচু রেখে চলতে হবে।‘ এজেন্টদের উদ্ধেশ্যে তাঁর আরও বার্তা, এজেন্টদের ভোট রক্ষা করতে হবে। আপনার ভোটের দাম অনেক বেশি। বাইরের লোক এলে পুলিশকে খবর দেবেন। পাশাপাশি তিনি আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন, ভোটের আগের দিন রেলে করে লোক নিয়ে আসা হবে।

এখানেই থেমে না থেকে মমতা বলেন, ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া চলাকালীন ইভিএম পরীক্ষা করে নেবেন বারবার। নতুন ভোট মেশিন দিলে দেখে নিতে হবে। বারবার এইভিএম চেক করবেন। ভিভিপ্যাড দেখে নেবেন, নইলে বিজেপি ভোট ভরে রেখে দেবে। প্রত্যেক ৩০টি ভোটের পর ইভিএম পরীক্ষা করে দেখে নেওয়ার পরামর্শ দেন তিনি। এমনকি ভোট হয়ে গেলে ভোটের মেশিন পাহারা দেওয়ার পরামর্শও দেন মমতা। বলেন, ভোট হয়ে গেলে ভোটের মেশিন পাহারা দিতে হবে।

এছাড়াও এদিনের সভা থেকে তিনি প্রতিশ্রুতির বন্যা বইয়ে দেন। বলেন এখন ট্যাব, সাইকেল সব দিচ্ছি, এরপর ১০ লক্ষ টাকার ক্রেডিট কার্ড করে দেবেন, যাতে ছেলেমেয়েরা বাইরে গিয়ে পড়াশোনা করে মানুষের মতো মানুষ হতে পারে।