কর্মী বিক্ষোভকে আমলই দিল না বিজেপি, এক সপ্তাহ পর প্রকাশ্যে এলেন কালিয়াগঞ্জের প্রার্থী সুমন

303
কর্মী বিক্ষোভকে আমলই দিল না বিজেপি, এক সপ্তাহ পর প্রকাশ্যে এলেন কালিয়াগঞ্জের প্রার্থী সুমন 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: প্রায় সপ্তাহ খানেক আত্মগোপন করে থাকার পর অবশেষে প্রকাশ্যে এলেন বিজেপি প্রার্থী; শুধু তাই নয়, সমস্ত মান-অভিমান এবং ক্ষোভ-বিক্ষোভকে প্রশমন করে কালিয়াগঞ্জ বিধানসভায় দলীয় কর্মীদের নিয়ে নির্বাচনী বৈঠক সারলেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়৷ মঙ্গলবার কালিয়াগঞ্জ শহরের ডাকবাংলো রোডে বিজেপির নির্বাচনী কার্যালয়ে বিজেপির সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের নিয়ে বৈঠক করলেন বিজেপির বিতর্কিত প্রার্থী সৌমেন রায়।

বৈঠক শেষে বিজেপি প্রার্থী জানান, বুধবার থেকে দলীয় কর্মী সমর্থকদের নিয়ে নির্বাচনী প্রচারে ঝাঁপাবেন তিনি। কালিয়াগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রকেও সোনার বাংলার রূপ দেওয়ার পাশাপাশি স্বাস্থ্য, শিক্ষা ও রাস্তাঘাটের উন্নয়ন হল তাঁর নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি- এমনটাই জানালেন কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়।

কর্মী বিক্ষোভকে আমলই দিল না বিজেপি, এক সপ্তাহ পর প্রকাশ্যে এলেন কালিয়াগঞ্জের প্রার্থী সুমন 2

উল্লেখ্য, বিজেপির প্রার্থীপদে আলিপুরদুয়ারের বাসিন্দা সৌমেন রায়ের নাম ঘোষণার পর থেকেই বিক্ষোভে উত্তাল হয়েছিল উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জ বিধানসভা। গত ১৮ তারিখ বিজেপি প্রার্থী তালিকা ঘোষণার পর কালিয়াগঞ্জ কেন্দ্রে সৌমেন রায়য়ের নাম দেখতে পেয়েই বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন বিজেপি কর্মীরা। এই সৌমেন রায়ের বিরুদ্ধেই একাধিক অভিযোগ তুলেছেন তারই স্ত্রীই। স্বাভাবিক ভাবেই প্রার্থীর বিরুদ্ধে তার স্ত্রী চরিত্র নিয়ে প্রশ্ন তোলায় কার্যকর্তাদের মধ্যে ব্যপক প্রভাব পড়েছে কালিয়াগঞ্জের মানুষ শান্ত প্রকৃতির মানুষের মনে। এমনকি উত্তর দিনাজপুরের বিজেপি সভাপতি বিশ্বজিৎ লাহিড়ীও প্রাথমিক ভাবে কালিয়াগঞ্জের প্রার্থীকে চিনতে পারেন না।

এরপর থেকেই প্রার্থী বদলের দাবীতে জোরদার আন্দোলনে নেমেছিলেন কালিয়াগঞ্জের বিজেপি কর্মী সমর্থকেরা। পথ অবরোধ থেকে শুরু করে, রাস্তায় টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ দেখানোর পাশাপাশি প্রার্থী বদলের দাবীতে আমরণ অনশণে বসেছিলেন কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপি নেতা কর্মীরা। এমনকি কালিয়াগঞ্জে বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়কে প্রচারে আসতে দেওয়া হয়নি। গত বুধবার বিক্ষোভ চরমে পৌঁছায়; এদিনদলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে বৈঠক করতে কালিয়াগঞ্জ কেন্দ্রের প্রার্থী সৌমেন রায়কে সঙ্গে নিয়ে যেতেই বিজেপির জেলা শীর্ষ নেতৃত্বের কপালে জোটে শারীরিক ও মানসিক হেনস্তা। ভাঙচুর করা হয় গাড়ি। কাণ্ড দেখে প্রচারের যাওয়ার আগেই পালিয়ে বাঁচেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়।

এমতাবস্থায় কার্যত প্রচার বন্ধ করে দেওয়ার পাশাপাশি কিছুটা আত্মগোপন করেছিলেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়। অবশেষে প্রায় ৭ দিন বাদে মঙ্গলবার প্রথম কালিয়াগঞ্জে প্রবেশ করেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়। সমস্ত ক্ষোভ বিক্ষোভ এবং মান অভিমানকে জয় করে দলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে নির্বাচনী বৈঠক করলেন কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়। কালিয়াগঞ্জ বিধানসভায় কৃষকদের জন্য একটি হিমঘর, একটি মহিলা কলেজ স্থাপন করার পাশাপাশি স্বাস্থ্য শিক্ষা ও রাস্তাঘাটের উন্নয়ন করবেন বলে প্রতিশ্রুতি দিলেন বিজেপি প্রার্থী সৌমেন রায়।