করোনা আবহে স্কুল খোলা নিয়ে কালিপূজোর পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন মুখ্যমন্ত্রী, দাবি শিক্ষা দফতরের

690
Advertisement

ওয়েব ডেস্ক : করোনা পরিস্থিতিতে ফের কবে থেকে খুলবে স্কুল-কলেজ, সে বিষয়ে এখনও পর্যন্ত কোনোপ্রকার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়নি রাজ্য সরকার। অতিমারির মধ্যে স্কুল খুলে কোনোভাবেই ছাত্রছাত্রীদের যে ঝুঁকির মুখে ফেলতে চান না সে কথা আগেই জানিয়েছে রাজ্য শিক্ষা দফতর৷ তবে আগামী মাস থেকে কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে ফের ক্লাস শুরু হবে বলে জানিয়ে দিলেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

Advertisement

করোনাভাইরাস আবহে দীর্ঘদিন বন্ধ স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়। বেসরকারি স্কুলগুলিতে অনলাইন ক্লাস হলেও সরকারি স্কুল গুলিতে সেই বালাই নেই বললেই চলে। এর জেরে স্বাভাবিকভাবেই পিছিয়ে পড়ছে পড়ুয়ারা। ফলে ফের কবে থেকে স্কুল-কলেজ খুলবে, তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে আলোচনা চলছিল। বিশেষত একাধিক রাজ্যের ইতিমধ্যে বিধিনিষেধ-সহ খুলেছে স্কুল-কলেজ। তবে সোমবার শিক্ষামন্ত্রী
এবিষয়ে স্পষ্ট জানিয়েছেন, কোনো কিছুর বিনিময়েই পড়ুয়াদের স্বাস্থ্য নিয়ে ন্যূনতম ঝুঁকি নেবে না রাজ্য। ফলে করোনা পরিস্থিতিতে ফের স্কুল কবে স্কুলে যেতে পারবে পড়ুয়ারা কিংবা আদেও এবছর তা সম্ভাব কিনা তা নিয়ে বিস্তারিতভাবে আলোচনা শুরু করেছে রাজ্য সরকার। এবিষয়ে এদিন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “শুধু স্কুল খুললেই তো হবে না। স্কুল চালু রাখতে হবে। পড়ুয়াদের ভাগ করে আনা যায় কিনা, তাও বিবেচনা করে দেখা হচ্ছে।”

Advertisement
Advertisement

সূত্রের খবর, তবে ছোটোদের স্কুল না খুললেও প্রাথমিকভাবে মাধ্যমিক-উচ্চমাধ্যমিকের কথা মাথায় রেখে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য স্কুল শুরু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এদিকে প্রতি বছর নভেম্বর মাসে মাধ্যমিকের টেস্ট হলেও অন্যান্য বছরের তুলনায় এবছরটা একেবারেই আলাদা। ফলে প্রথমে মাধ্যমিক- উচ্চমাধ্যমিক পড়ুয়াদের ক্লাস শুরু হবে পরবর্তীকালে ধাপে ধাপে বাকি পড়ুয়াদেরও ক্লাস শুরু করার সম্ভাবনা রয়েছে। এদিকে রাজ্যের তরফে এবিষয়ে ইতিমধ্যেই জানানো হয়েছে, কালীপুজোর পর এবিষয়ে আলোচনার করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত ঘোষণা করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।