প্র‍য়াত গুজরাতের বিজেপির প্রথম মুখ্যমন্ত্রী কেশুভাই প্যাটেল, প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর প্রয়াণে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল

226
প্র‍য়াত গুজরাতের বিজেপির প্রথম মুখ্যমন্ত্রী কেশুভাই প্যাটেল, প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর প্রয়াণে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল 1

ওয়েব ডেস্ক: প্রয়াত হলেন গুজরাতের প্রথম মুখ্যমন্ত্রী কেশুভাই প্যাটেল। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯২ বছর। জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার সকালে আচমকা তাঁর শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা দেখা দিলে পরিবারের তরফে দ্রুত কেশুভাই প্যাটেলকে আমদাবাদের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর তাঁকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রাখা হলে কয়েকঘন্টার মধ্যে সেখানেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন গুজরাতে প্রথম ও প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর। জানা গিয়েছে, গত সেপ্টেম্বর মাসের মাঝামাঝিতেই তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। সেসময় তাঁর করোনা পরীক্ষা করা হলে জানা যায়,তিনি করোনায় আক্রান্ত। এরপর অবশ্য সুস্থও হয়ে উঠেছিলেন তিনি।

জানা গিয়েছে, ষাটের দশকের প্রথমদিকে কেশুভাই প্যাটেল জনসংঘের সদস্য হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন। এরপর ১৯৭৭ সালে রাজকোট বিধানসভায় জয়লাভের পর একে একে কেশুভাই প্যাটেলের হাত ধরেই গুজরাটে প্রথমবার সরকার গড়েছিল বিজেপি। এরপর একে একে বিভিন্ন বিধানসভায় জয়লাভের পর ১৯৯৫ সালে গুজরাতে বিজেপির প্রথম মুখ্যমন্ত্রী হয়েছিলেন তিনি। তারপর থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত পরপর গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রীর পদে বহাল ছিলেন কেশুভাই প্যাটেল। কেশুভাইয়ের পর আর কোনও অবিজেপি মুখ্যমন্ত্রী পায়নি গুজরাত। বরং কেশুভাইয়ের পর গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী হয়েছিলেন নরেন্দ্র মোদী।

প্র‍য়াত গুজরাতের বিজেপির প্রথম মুখ্যমন্ত্রী কেশুভাই প্যাটেল, প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর প্রয়াণে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল 2

এদিন কেশুভাইয়ের প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এদিন টুইটারে শোকপ্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন,”আমাদের প্রিয় ও শ্রদ্ধেয় কেশুভাই প্রয়াত হয়েছেন। আমি অত্যন্ত দুঃখিত এবং শোকাহত। উনি একজন দুর্দান্ত নেতা ছিলেন। যিনি সমাজের প্রতিটি শ্রেণির মানুষের দেখভাল করতেন। গুজরাতের উন্নতি এবং প্রত্যেক গুজরাতের মানুষের ক্ষমতায়নের নিজের উৎসর্গ করেছিলেন।”