খড়গপুরে করোনা আতঙ্ক, বন্ধ হল নার্সিংহোম, স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে চিকিৎসক

306
খড়গপুরে করোনা আতঙ্ক,  বন্ধ হল নার্সিংহোম, স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে চিকিৎসক 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: সত্তরোর্ধ এক বৃদ্ধের চিকিৎসা করতে গিয়ে করোনা বিড়ম্বনায় পড়ল খড়গপুর শহরের একটি নার্সিংহোম। শনিবার থেকে ওই নার্সিংহোম বন্ধ করে দিলেন কর্তৃপক্ষ। বৃদ্ধের চিকিৎসার সঙ্গে যুক্ত শহরের এক প্রখ্যাত চিকিৎসক ও তাঁর পরিবার স্বেচ্ছা নিভৃতবাসে চলে গেছেন বলেই জানা গেছে।খড়গপুরে করোনা আতঙ্ক,  বন্ধ হল নার্সিংহোম, স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে চিকিৎসক 2 তাঁর প্রাইভেট চেম্বারটিও অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে।

সূত্র মারফৎ জানা গেছে, খড়গপুর শহরের এক বয়স্ক ব্যবসায়ী যিনি গোলবাজারের একটি দোকানের মালিক হৃদরোগ সংক্রান্ত সমস্যা নিয়ে খড়গপুর মহকুমা হাসপাতালের সামনেই ছোট ট্যাংরার একটি নার্সিংহোমে ভর্তি হন শুক্রবার। তাঁকে দেখছিলেন শহরের বিশিষ্ট চিকিৎসক অনিরুদ্ধ ঘোড়ই।

খড়গপুরে করোনা আতঙ্ক,  বন্ধ হল নার্সিংহোম, স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে চিকিৎসক 3

শুক্রবার রাতের দিকে ওই ব্যবসায়ীর প্রবল শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। অবস্থা খুবই সঙ্কট জনক মনে হওয়ায় ঘোড়ই তাঁকে কলকাতা নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। শনিবারই পরিবার ব্যবসায়ীকে কলকাতার বিএম বিড়লা হাসপাতালে নিয়ে যান। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ প্রথমেই ব্যবসায়ীর করোনার উপসর্গ আছে কিনা জানার জন্য একটি প্রাথমিক পরীক্ষা করে।

আরও পড়ুন -  নেতাজির জন্ম দিনে ভারতমাতার পুজো করে বিতর্কে এভিবিপি

নার্সিংহোমের এক দায়িত্ব প্রাপ্ত আধিকারিক জানান, ‘যদিও এই পরীক্ষায় করোনা নিশ্চিত হওয়া যায়না তবে প্রাথমিক সম্ভাবনা নির্ধারন করা যায়। পরবর্তীকালে মূল পরীক্ষায় করোনা নিশ্চিত হতে হয়। যাইহোক ওই পরীক্ষায় ওই ব্যবসায়ীকে সম্ভবনাময় কোভিড আক্রান্ত বলে চিহ্নিত করা হয়। খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমরা নার্সিং হোমের সমস্ত রোগীকে ছুটি দিয়ে দিয়েছি। নার্সিংহোম বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সাত দিনের জন্য। পুরো নার্সিংহোম স্যানিটাইজ করার পর খোলা হবে। আমরা সমস্ত কর্মী আপাতত স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে আছি। যদি পরবর্তী পরীক্ষায় ওনার পজিটিভ আসে তবে সবাইকে করোনা পরীক্ষার উদ্যোগ নেওয়া হবে।”

আরও পড়ুন -  যম দুয়ার থেকে ক্যাম্প সরালো তৃনমূল,লড়াই হাড্ডাহাড্ডি, ভালো ভোট পেয়েছে জোটও

এদিকে ঘটনা জানার পরই স্বেচ্ছা নিভৃতবাসে চলে গেছেন প্রবীন চিকিৎসক ঘোড়ই ও পরিবার। কিছুদিনের জন্য চেম্বার বন্ধ করে নোটিশ ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে।