পুজোর মুখে সুখবর! সিনিয়র সিটিজেনদের ই-পাসে ছাড় সহ একাধিক উপহার দিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ

168
পুজোর মুখে সুখবর! সিনিয়র সিটিজেনদের ই-পাসে ছাড় সহ একাধিক উপহার দিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ 1

ওয়েব ডেস্ক: দোরগোড়ায় বাঙালীর শ্রেষ্ঠ উৎসব। এর মাঝেই কলকাতাবাসীর জন্যে সুখবর শোনালো মেট্রো কর্তৃপক্ষ। সোমবার থেকেই থেকে বাড়িয়ে দেওয়া হল মেট্রোর সংখ্যা। তবে শুধুমাত্র মেট্রো সংখ্যাই নয়, একই সাথে বাড়ানো হয়েছে মেট্রো চলাচলের সময়ও। জানা গিয়েছে, এবার থেকে দুদিক থেকেই রাত ৯টায় শেষ মেট্রো মিলবে৷ পাশাপাশি, এতদিন ১৫ মিনিট অন্তর মেট্রো চললেও এবার থেকে অফিস টাইমে ৮ মিনিট অন্তর চলবে মেট্রো। একই সাথে এতদিন কলকাতা মেট্রোয় সকাল ১১ঃ৩০ থেকে বিকেল ১৬ঃ৩০ অবধি কোনও ই-পাস লাগত না সিনিয়র সিটিজেনদের। কিন্তু এবার মেট্রো কর্তৃপক্ষের তরফে নয়া সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছে, এবার থেকে মেট্রোয় উঠতে আর সিনিয়র সিটিজেনদের প্রয়োজন হবে না ই-পাস এর।

আরও পড়ুন -  স্টাফ স্পেশ্যালে চড়ার দাবিতে যাত্রী বিক্ষোভ, পুলিশি লাঠিচার্জে রণক্ষেত্র হাওড়া স্টেশন

এবিষয়ে মেট্রো কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে, এতদিন শুধুমাত্র রবিবার ই-পাস লাগতো না সিনিয়র সিটিজেনদের। বয়স্কদের সুবিধার কথা মাথায় রেখেই তাদের ই-পাসে ছাড়ের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। জানা গিয়েছে, শুধুমাত্র পুজোর কটাদিন নয়, এবার থেকে আর কোনও দিনই মেট্রোয় ই-পাস প্রয়োজন হবে না সিনিয়র সিটিজেনদের। সেক্ষেত্রে শুধুমাত্র বয়সের প্রমাণ। পাশাপাশি যেহেতু পুজোয় কেনাকাটার জন্য বহু যাত্রী কলকাতার দিকে যান, সেহেতু তাদের কথা মাথায় রেখে চলতি মাসের ৪ তারিখ থেকে রবিবারও মিলছে মেট্রো পরিষেবা। রবিবার মোট মেট্রো চলছে ৫৮ টি। তার মধ্যে ২৯ আপ ও ২৯ ডাউন।

পুজোর মুখে সুখবর! সিনিয়র সিটিজেনদের ই-পাসে ছাড় সহ একাধিক উপহার দিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ 2

অন্যদিকে, একের পর এক পুজোর উপহার দিয়ে চলেছে কলকাতা মেট্রো কর্তৃপক্ষ। সোমবার থেকেই বাড়ানো হয়েছে কলকাতায় মেট্রোর সংখ্যা। এতদিন মোট ১৪৬ টি আপ ও ডাউন মেট্রো চালানো হত। সোমবার থেকে সেই সংখ্যা বাড়িয়ে ১৫২টি করা হয়েছে। এদিকে আনলক ৪ পর্যায়ে মেট্রোরেল চালু হওয়ার পর থেকে মেট্রো চলছিল প্রতি রেকে ৪০০ জন যাত্রী নিয়ে। গত সপ্তাহ থেকে সেই সংখ্যা বাড়িয়ে ৫৬০ জন করা হয়েছে। তবে সপ্তাহের বাকি দিনগুলিতে সব স্টেশনে মেট্রো চললেও রবিবার শুধুমাত্র দমদম থেকে কবি সুভাষ পর্যন্তই চলবে মেট্রো। পাশাপাশি যেহেরু প্রতিদিনই বাড়ছে যাত্রী সংখ্যা, তারওপ্র পুজোর মরসুম। ফলে অফিস টাইমে সকাল-সন্ধ্যা বাড়ানো হচ্ছে মেট্রোর সংখ্যা। তবে এতকিছুর পরেও পুজোর সময় মেট্রোয় যাতে স্টেশনে ভিড় নিয়ন্ত্রণে রাখা যায়, পাশাপাশি যাতে কোনোভাবেই সংক্রমণ না ছড়ায়, সেই কথা মাথায় রেখেই যথাযথ ব্যবস্থা নিচ্ছে মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ।