৫৬ আসনের ৪০ চাই! খড়গপুর, কাঁথি, পুরুলিয়ায় মোদি

682
৫৬ আসনের ৪০ চাই! খড়গপুর, কাঁথি, পুরুলিয়ায় মোদি 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: ২৭শে মার্চ আর ১লা এপ্রিল বাংলার প্রথম এবং দ্বিতীয় দফার ভোট। আর এই দুই দফায় ৫৮ আসনে ভোট যার মধ্যে দুই মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া আর পুরুলিয়াতে আসন সংখ্যা ৫৬। বিজেপির হিসাব এই ৫৬ আসনের অন্ততঃ ৪০টি আসন পেতে চলেছে তারা। এরমধ্যে আবার ঝাড়গ্রামের পুরুলিয়ার ও বাঁকুড়ার ২৫আসনের ১৭টিতে নাকি নিশ্চিত জয়, বাকি ২৩টি আসন তাঁরা ছিনিয়ে নিতে চায় দুই মেদিনীপুর থেকে।

৫৬ আসনের ৪০ চাই! খড়গপুর, কাঁথি, পুরুলিয়ায় মোদি 2

বিজেপির হিসাব বলছে এই ২৩টির ১৫টিতে তারা সুবিধা জনক অবস্থানে রয়েছে বাকি ৮টি আসনে লড়াই হাড্ডাহাড্ডি হবে। যে আটটি আসনে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই তার মধ্যে ২টি আসনে তাদের লড়াই হবে বামেদের মধ্যে। বিধানসভা ২০২১য়ের এই লড়াইয়ে এমনই একটি হিসেব পাওয়া গেছে বিজেপির পশ্চিমাঞ্চল কমিটির সূত্রে যার মাথায় রয়েছে জ্যোতির্ময় সিং মাহাত।

৫৬ আসনের ৪০ চাই! খড়গপুর, কাঁথি, পুরুলিয়ায় মোদি 3

জানা গেছে বিজেপির রাজ্য নির্বাচনী কমিটি, রাজ্য কমিটি এবং কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষকদের সাথে আলোচনা করে পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে প্রধানমন্ত্রীর জন্য মোট ২০টি সভা স্থির করা হয়েছে যার মধ্যে তিনটি সভা হচ্ছে খড়গপুর, পুরুলিয়া এবং কাঁথিতে। যার মধ্যে ২০শে মার্চ খড়গপুরের সভাই হচ্ছে সরচেয়ে বেশি বিধানসভাকে লক্ষ্য রেখে। মেদিনীপুর এবং খড়গপুর গ্রামীন ও শহর ছাড়াও কেশিয়াড়ী, ডেবরা, সবং, পিংলা, নারায়নগড়, দাঁতন, গড়বেতা, শালবনী, কেশপুরের প্রার্থীরা এখানে থাকবেন। প্ৰয়োজনে ঝাড়গ্রামের চার বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থীরা থাকবেন।

আগামী ২৪ মার্চ, বৃহস্পতিবার পূর্ব মেদিনীপুরের কাঁথিতে সভা করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। যার ঠিক চারদিনের মাথায় ২৭ মার্চ থেকে ভোট শুরু বাংলায়। মনে করা হচ্ছে ৭ই মার্চ ব্রিগেডের সভার পর পূর্ব মেদিনীপিুরে ‘অধিকারী গড়’ থেকেই মমতা ব্যানার্জীর উদ্দেশ্যে দ্বিতীয়বার ফের জোরালো তোপ দাগবেন মোদি কারন এই জেলারই নন্দীগ্রাম থেকে প্রার্থী মুখ্যমন্ত্রী। আর প্রতিপক্ষ কাঁথির ছেলে শুভেন্দু অধিকারী।

একটি সূত্রে জানা গেছে এই সভায় থাকতে পারেন শিশির অধিকারী এমনটা জানা যাচ্ছে। বলাবাহুল্য সেটা যদি হয় তবে সেটা হবে বড় চমক। এও জানা গেছে যে ছেলের হয়ে প্রচারে নন্দীগ্রামেও নামতে পারেন শিশির। তবে এই পর্যায়ে প্রধানমন্ত্রীর সফর শুরু হচ্ছে পুরুলিয়া দিয়েই। ১৮ মার্চ বৃহস্পতিবার পুরুলিয়ায় আসছেন তিনি। সব মিলিয়ে সপ্তাহ ভর তিনটি সভা করতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

Previous articleহাইকোর্টে বহাল নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত, জয়পুর কেন্দ্রে বাতিল ঘাসফুলের মনোনয়ন
Next articleনির্বাচনের কাজ থেকে অব্যহতি পেতে এবার ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ বিদ্যালয় প্রধানদের সংগঠন