টেটের স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে জলপাইগুড়িতে প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের সামনে অবস্থান চাকরী প্রার্থীদের

193
Advertisement

নিউজ ডেস্ক: রাজ্যে ২০১৪ সালের প্রাথমিকে নিয়োগের পরীক্ষায় প্রকাশিত হয়েছে প্রায় পনোর হাজার পরীক্ষার্থীর নাম।নিয়োগের তালিকা প্রকাশিত হলেও তা মেধার ভিত্তিতে হয়নি বলে অভিযোগ।এমনকি কাউন্সিলিং-এর নামে চাকরীপ্রার্থীদের হয়রানির অভিযোগও উঠছে।

Advertisement

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের পরীক্ষায় তালিকাভুক্ত সকলকেই কাউন্সিলেংয়ে ডাকতে হবে। এই দাবিতে বৃহস্পতিবার জলপাইগুড়ি জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের সামনে রাস্তার উপর বসে বিক্ষোভ দেখান চাকরীপ্রার্থীরা। দীর্ঘ সময় ধরে চলে অবরোধ। পরবর্তীতে পুলিশ উপস্থিত হয় ঘটনাস্থলে।তবে অবরোধ তুলতে পুলিশকে তেমন কোনও উদ্যোগ নিতে দেখা যায় নি।

Advertisement
Advertisement

আন্দোলনকারীদের দাবি, জেলায় পাঁচশো নব্বই জন পরীক্ষা দেয় পাশ করে পাঁচশো একষট্টি জন।তালিকায় নাম থাকলেও মাত্র ২১৭ জনকে কাউন্সেলিংয়ে ডাকা হয়েছে। বাকিদের কলকাতায় কাউন্সিলিং হবে বলে জানানো হয়েছে। যা তারা মানবেন না বলে সাফ জানান।যতক্ষণ তাদের নাম ডাকা না হবে ততক্ষণ তারা এখানেই থাকবেন।

কাউন্সিলিং-এ ডাকার দাবীতে দফায় দফায় এদিন উত্তেজনা ছড়ায়। একই দাবিতে বৃহস্পতিবার রাতেও চলছে অবস্থান। জলপাইগুড়ি জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের সামনে রাস্তার উপর বসে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন তাঁরা। অনেকেই ছোট ছোট শিশুকে কোলে নিয়ে দীর্ঘ সময় ধরে অবরোধে সামিল হয়েছে‌ন।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের চেয়ারম্যান মানবেন্দ্র ঘোষ বলেন,রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে যে প্যানেল লিস্ট পাঠানো হয়েছিল এদিন শুধু তাদের কাউন্সিলিং করা হল।বাকিদের নাম এখনো পৌছায়নি তাদের কাছে সেক্ষেত্রে কাউন্সিলিং জেলায় সম্ভব নয়।যাদের মোবাইলে মেসেজ এসেছে তাদের কাউন্সিলিং সম্ভবত কলকাতায় হবে বলে তিনি জানান।