নারকোটিক্স পরীক্ষায় দোষী প্রমাণিত হলে ১০ বছরের জেল হতে পারে রিয়ার, দাবি নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর

197

ওয়েব ডেস্ক : সুশান্ত মামলায় এবার বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে নাম জড়িয়াছে মাদক চক্রের। ইডি-র দেওয়া তথ্য অনুযায়ী রিয়া চক্রবর্তীর সাথে মাদক চক্রের বড়সড় যোগ রয়েছে। এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট এর দেওয়া তথ্য অনুযায়ী ইতিমধ্যেই এবিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। রিয়ার বিরুদ্ধে ‘নারকোটিক ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্স আইন’ অনুযায়ী ইতিমধ্যেই মামলা দায়ের করা হয়েছে। সূত্রের খবর, রিয়া এবং তাঁর সাগরেদরা মাদক সেবন করতেন কিনা, তা নিশ্চিত করতে দিন কয়েকের মধ্যেই প্রত্যেকের নারকোটিক্স টেস্ট করা হবে। সেকারণে শীঘ্রই তাঁদের রক্তের নমুনা সংগ্রহ করা হবে বলেই জানা গিয়েছে।

আরও পড়ুন -  ডেবরা সুপার স্পেশালিটিতে হদিস মিলল করোনা আক্রান্ত সবংয়ের সদ্য মা হওয়া তরুনীর, নতুন করে করোনা পজিটিভ ডেবরার ২ পুলিশ কর্মী

সূত্রের খবর, ইডির তরফে রিয়ার ফোন বাজেয়াপ্ত করার পর জানা যায়, সম্প্রতি রিয়া, হাউস ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডা, জয়া সাহা ও দীপেশ সাওয়ান্ত প্রত্যেকের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটে এমডিএমএ, হ্যাস সহ বেশ কিছু নিষিদ্ধ মাদক সংক্রান্ত বিভিন্ন কথাবার্তা উঠে এসেছে। শুধু তাই নয়, রিয়া ও তাঁর ট্যালেন্ট ম্যানেজার জয়া সাহার কথাবার্তায় আরও বিস্ফোরক তথ্য উঠে এসেছে। জয়া সাহা রিয়াকে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে সিবিডির মতো একটি নিষিদ্ধ মাদক সম্পর্কে নানা তথ্য দিয়েছিলেন। শুধু তাই নয়, সেটি চা কিংবা জুসের সাথে চার ফোটা করে মিশিয়ে সুশান্তকে প্রতিদিন খাওয়ানোর কথাও বলেছিলেন। সে অনুযায়ী রিয়া সুশান্তকে চা কিংবা কফির সঙ্গে মাদক মিশিয়ে খাওয়াত বলে মনে করছে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা। এদিকে এই তথ্য উঠে আসার পর পরই রিয়া ও তাঁর সঙ্গীদের বিরুদ্ধে ১৯৮৫-র ‘নারকোটিক ড্রাগস অ্যান্ড সাইকোট্রপিক সাবস্ট্যান্স আইন’ অনুযায়ী ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৮, ২০বি সহ একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করা হয়।

তবে জানা গিয়েছে, নারকোটিক্স পরীক্ষার পর রিয়া ও তাঁর অন্যান্য সঙ্গীদের রক্তের নমুনা পাওয়ার পর তাদের বিরুদ্ধে ওঠা এই অভিযোগ প্রমাণিত হলে রিয়া ও তাঁর প্রত্যেক সঙ্গীর কমপক্ষে ১০ বছরের কারাদণ্ড হতে পারে। এই মূহুর্তে তাদের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ নিয়ে ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করে দিয়েছেন নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। খুব শীঘ্রই রক্তের নমুনা প্রকাশ্যে আসবে বলেই আশবাদী নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো।

নারকোটিক্স পরীক্ষায় দোষী প্রমাণিত হলে ১০ বছরের জেল হতে পারে রিয়ার, দাবি নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর 1