Homeএখন খবরবেলদায় ভিড় ভেঙে পড়ল দু-মুখো সাপ দেখতে , উদ্ধার আরও এক পুর্ন...

বেলদায় ভিড় ভেঙে পড়ল দু-মুখো সাপ দেখতে , উদ্ধার আরও এক পুর্ন বয়স্ক খরিস

Advertisement

নিজস্ব সংবাদদাতা: পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বেলদা থানা এলাকার সাউরি সংলগ্ন একারখি গ্রাম থেকে উদ্ধার হল একটি দু-মুখো সাপ। বাস্তবে এমন সাপের কোনও অস্থিত্ব নেই এমনটা দাবি করা হলেও উদ্ধার হওয়া কালো কেউটে প্রজাতির এই সাপটিকে দেখতে ভিড় ভেঙে পড়ল একারখি গ্রামে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
স্থানীয় বাসিন্দা নন্দদুলাল দাস জানিয়েছেন,  ” ২মাস আগে সাপটিকে দেখা গিয়েছিল একটি পানের বরজে। গ্রামে গ্রামে রটে গিয়েছিল সেই দু-মুখো সাপের কথা। সাপটি দেবতার সাপ এমন বিশ্বাস থেকে সাপটি দেখার জন্য চরম আগ্রহ ছিল।”

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
শনিবার নন্দদুলাল দাস ও সরোজ যাদব নামের এক যুবক সাপটিকে দেখতে পেয়ে বহু কসরত করে সাপটিকে ধরে। সাপটি ধরা পড়েছে খবর পেয়েই কাতারে কাতারে লোক ভিড় জমাতে থাকে ওই গ্রামে। কেউ কেউ আবার থালায় দুধ রেখে সাপটিকে খাওয়ানোর চেষ্টাও করে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
ঘটনাক্রমে রাত পোহালেই কালিপুজো আর তাতেই শিবের সঙ্গে সাপের মিথ জড়িয়ে থাকায় ভক্তিপ্রান মানুষের উৎসাহ টগবগ করে ফুটতে থাকে। কেউ কেউ আবার মন্দিরে রাখার জন্য সাপটি নিয়ে যেতে চায়। যদিও এলাকাবাসীরা বেলদার বন বিভাগে জানিয়েছে সাপটিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য। সাপটি ধরার সময় আঘাত পাওয়ায় কিংবা অন্য কারনে সাপটিকে কিছুটা নিস্তেজ লক্ষ্য করাও গেছে।

বনদপ্তর সুত্রে অবশ্য জানানো হয়েছে সত্যি সত্যি দু-মুখো সাপের কোনও প্রজাতি সেই অর্থে এই এলাকায় নেই। যে সাপটিকে একারখিতে উদ্ধার করা হয়েছে তা আসলে সাধারন প্রজাতিরই একটি বিষধর সাপ। প্রাথমিক ধারনা অনুযায়ী এটি কেউটে জাতীয়। কিন্ত জৈবিক ত্রুটি জনিত কারনে এর একই ফনার মধ্যেই দুটি মুখ রয়েছে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
যেমন জন্মের প্রাক্কালে ভ্রুণের বিকৃতিতে মানুষেরা ছটা আঙুল বা বাছুরের দুটি মুখ লক্ষ্য করা যায় এই সাপের ক্ষেত্রেও তাই হয়েছে। এটা দু-মুখো কোনও প্রজাতি নয়। অন্যদিকে পশ্চিম মেদিনীপুরের বেলদা থানার গাঁগুটিয়াতেও আজ শনিবার একটি বৃহৎ আকারের পূর্ণ বয়স্ক খরিস সাপ উদ্ধার হয়েছে ।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
ঘটনায় জানা যায় উক্ত গ্রামের কানাই বারিক নামে এক ব্যক্তির অগভীর কুয়োতে। সাপটিকে পড়ে থাকতে দেখেন এলাকাবাসীরা ।সঙ্গে সঙ্গে খবর দেওয়া হয় স্থানীয় বেলদার বনবিভাগে ।পরে বনকর্মীরা এসে তা উদ্ধার করে । তবে সাতটি জটিল পরিস্থিতিতে থাকায় উদ্ধারের সময় বেগ পেতে হল  বনকর্মীদের ।সেই সঙ্গে সাপটিকে দেখতে হুড়োহুড়ি পড়ে যায় এলাকাবাসীদের মধ্যে ।

Advertisement

Advertisement

RELATED ARTICLES

Most Popular