৩১ শে মার্চ থেকে বাতিল বিশেষ ট্রেন! কী জানাল রেল মন্ত্রক

952
৩১ শে মার্চ থেকে বাতিল বিশেষ ট্রেন! কী জানাল রেল মন্ত্রক 1

নিউজ ডেস্ক: দেশজুড়ে ক্রমশই উদ্বেগ বাড়াচ্ছে করোনা সংক্রমণ। চলতি বছরের শুরুর দিকে দিনে দেশে দৈনিক সংক্রমণ ছিল ১০ হাজার। সেখান থেকে ক্রমশই বাড়ছে সংক্রমিতের সংখ্যা। সোমবার ২৬ হাজার ২৯১ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। গত ৮৫ দিনে এটি ছিল সর্বোচ্চ। এর মধ্য়ে একাধিক রাজ্যের তরফে একাধিক সতর্কতা নেওয়া হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে আবার শোনা যাচ্ছে বাড়তে থাকা এই সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে বাতিল করা হচ্ছে বিশেষ ট্রেন। ৩১ শে মার্চ থেকে এই ট্রেনগুলি বাতিলের সম্ভাবনা রয়েছে। কিন্তু সোমবার রেল মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে এই খবর সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন। মানুষকে বিভ্রান্ত করার জন্য এমন খবর কেউ বা কারা রটিয়ে দিয়েছে।

৩১ শে মার্চ থেকে বাতিল বিশেষ ট্রেন! কী জানাল রেল মন্ত্রক 2

এদিন রেলের তরফে একটি সরকারি বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন কতগুলি খবর ছড়িয়েছে যেখানে বলা হয়েছে ৩১ মার্চ থেকে রেল কয়েকটি ট্রেন বাতিল করবে। এই খবর সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন ও বিভ্রান্তিকর। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভুল তথ্য ছড়িয়ে পড়ছে। তারা এমন কোনও ঘোষণাই করেনি। মন্ত্রকের তরফে এও জানানো হয়েছে, এই ভিডিও ক্লিপটি বিগত বছরের। এখন সেটি ফের ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। এই ঘোষণার পাশাপাশি রেলের তরফে সম্পূর্ণ কোভিড প্রোটোকল মেনে যাত্রীদের যাতায়াতের অনুরোধও করা হয়েছে।

৩১ শে মার্চ থেকে বাতিল বিশেষ ট্রেন! কী জানাল রেল মন্ত্রক 3

এদিকে করোনা যে শুধু সংক্রমণ ছড়াচ্ছে তা নয়, কেড়ে নিচ্ছে অনেক অনেক প্রাণও। বর্তমানে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১ লক্ষ ৫৮ হাজার ৭২৫। গত ২৪ ঘণ্টায় ১১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। ভারতে বর্তমানে অ্যাক্টিভ কেসের সংখ্যা ২ লক্ষ ১৯ হাজা ২৬২। সুস্থতার হারও কমেছে। এখন ৯৬.৬৮ শতাংশ মানুষ সুস্থ হচ্ছেন। বিশেষত ৫টি রাজ্যে দ্রুত হারে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ। সেখানেই গোটা দেশের ৭৮.৪১ শতাংশ করোনা সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে। এই রাজ্যগুলি হল মহারাষ্ট্র, পঞ্জাব, কর্ণাটক, গুজরাট ও তামিলনাড়ু।

সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে মহারাষ্ট্রে। এই রাজ্যেই শুধুমাত্র ৬৩ শতাংশ মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। সরকারি সূত্রে খবর, ৮টি রাজ্যে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ। সেগুলি হল মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু, পঞ্জাব, মধ্য প্রদেশ, দিল্লি, গুজরাট, কর্ণাটক ও হরিয়ানা। গত এক মাসে কেরলে সংক্রমণ অনেকটা কমেছে। গত বছর মার্চ মাসে প্রতিটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে করোনা নিয়ে বৈঠক করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী। এ বছর জানুয়ারিতে তিনি রাজ্যগুলির সঙ্গে টিকা নিয়ে বৈঠক করেন। এবারে গোটা পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বিগ্ন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি চাইছেন ফের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে, খবর সূত্রের। বাড়তে থাকে এই করোনা সংক্রমণ চিন্তায় ফেলেছে কেন্দ্রীয় সরকারকেও।

Previous articleদেশে আবারও মাথা ছাড়া দিচ্ছে করোনা; মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে ফের বৈঠকে বসছেন প্রধানমন্ত্রী
Next articleবাটলা হাউস এনকাউন্টার মামলায় আরিজের ফাঁসির সাজা ঘোষণা দিল্লির আদালতের