দক্ষিন ২৪পরগনায় প্রেমিকার দখল নিয়ে বচসার জেরে খুন তরুন

170
দক্ষিন ২৪পরগনায় প্রেমিকার দখল নিয়ে বচসার জেরে খুন তরুন 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: মেয়েটি কার প্রেমিকা হবে সেই নিয়ে বচসা আর বচসা থেকে হাতাহাতি আর অবশেষে ধারালো অস্ত্রের ব্যবহারের জেরে খুনই হয়ে গেল এক তরুন। মদের আসরে খুন হলেন এক যুবক। মঙ্গলবার রাতে দক্ষিণ ২৪ পরগনার নরেন্দ্রপুর থানার খুদিরাবাদ এলাকার ঘটনায় মৃত ১৯বছরের তরুনের নাম বাবু হালদার বলে জানা গেছে। ঘটনায় ছুরিকাহত হয়ে আরও এক যুবক আশংকা জনক অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

 

দক্ষিন ২৪পরগনায় প্রেমিকার দখল নিয়ে বচসার জেরে খুন তরুন 2

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে মঙ্গলবার রাতে খুদিরাবাদ এলাকার একটি মাঠে মদের আসর বসিয়েছিল কয়েক জন যুবক। সেখানেই প্রতিবেশি একটি মেয়েটি কার সাথে প্রেম করবে তাই নিয়ে দুই তরুনের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। আর তারপরই তা পরিনত হয় প্রানঘাতী খুনোখুনিতে। আর তারই জেরে খুন হয় বাবু হালদার নামে ওই তরুন। খুনোখুনি রুখতে গিয়ে মারাত্মক জখম হয় আরও এক তরুন।
এই ঘটনার পর এলাকা জুড়ে ব্যাপক তল্লাশি চালিয়ে এখনও পর্যন্ত পুলিশ পাঁচজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। ধৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ জানতে পেরেছে, মদের আসরে বচসার পরই বাবুকে পেটে ও বুকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে অন্য কয়েকজন যুবক। বাবুকে বাঁচাতে গেলে মিহির মজুমদারকেও আক্রমণ করা হয়। মিহিরের শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এরপর দুই যুবককে এলাকায় ফেলে পালিয়ে যায় এই আসরে থাকা অন্যরা।

 

পরে স্থানীয় বাসিন্দারা তাঁদের পড়ে থাকতে উদ্ধার করে । তারাই খবর দেয় বাবুর পরিবার ও পুলিশকে । বাবুর অবস্থার দ্রুত অবনতি হতে দেখে কলকাতার এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে। যদিও চিকিৎসকরা বাবু মজুমদারকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। মিহির মজুমদারের অবস্থা এখন স্থিতিশীল বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।
এদিকে যে মেয়েটিকে ঘিরে এই লড়াই তারও খোঁজ করছেন পুলিশ। এই মেয়েটি নিরপরাধ নাকি সে দু’জনকেই প্রলোভিত করেছিল কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।