সুবর্নরেখার কথা-২১ ।। উপেন পাত্র

152
সুবর্নরেখার কথা-২১  ।। উপেন পাত্র 1

বুদ্ধের শিবায়ন , সুবর্নরেখা অববাহিকায় ধুলিয়া মাড়ো
উপেন পাত্র

শিবের গাজন বা চড়ক পরব সাধারণত চৈত্র মাসের সংক্রান্তিতে অনুষ্ঠিত হয়।সুবর্ণরেখা নদী অববাহিকায় কিছুক্ষেত্রে বৈশাখ মাসেও অনুষ্ঠিত হয়,একে “ধুলিয়া মাড়ো” বলা হয়। শিবের বিবাহ অনুষ্টান হলো গাজন।শিবের বরযাত্রী অদৃশ্যে থাকা ভুত প্রেত,প্রত্যক্ষে শৈব সন্ন্যাসীরা।গৃহত্যাগী সন্ন্যাসী নয়,গৃহী সন্ন্যাসী বা ভক্তা।গাজনে তেরো জন ভক্তা থাকে,সাথে মানত ভক্তাও থাকে।ঢাক ঢোল বাজিয়ে গৃহীর বাড়ি থেকে ভক্তা শিবমন্দিরে যায়।”নিজ গোত্র পরিত্যজ্য শিব গোত্রে প্রবিশতে” বলে চৈত্র মধ্য থেকে সংক্রান্তি পর্যন্ত পক্ষকাল গৃহীরা সন্ন্যাস নিয়ে ভক্তা হয়।
গাজন কথাটি গর্জন থেকে এসে থাকবে, বরযাত্রী ভুত প্রেতের গর্জন।ভক্তাদের প্রতিদিন বিকালে নদী বা জলাশয়ে গিয়ে স্নান করতে যাওয়াকে “হাঁকড়” বলে,কথাটি হুঙ্কার থেকে এসে থাকবে, বরযাত্রীদের হুঙ্কার।দক্ষিণ পশ্চিম বাংলায় গাজনকে “মাড়ো”ও বলা হয়,যা মণ্ডপ কথা থেকে এসে থাকবে।কোথাও উৎসবে ব্যবহৃত গানগুলিকে গাজন বলা হয়।

সুবর্নরেখার কথা-২১  ।। উপেন পাত্র 2

বৈশাখ মাসের গাজন বিষয়টি বিশ্লেষণ করে কিছু অদ্ভুত প্রশ্ন মাথায় আসে।আদিতে এটি কি ধম্ম ঠাকুরের উৎসব ছিল?ধম্ম ঠাকুর হলেন বুদ্ধের পরিবর্তিত রূপ।বৈশাখী পূর্ণিমাতে বুদ্ধের জন্ম জয়ন্তী পালন করা হতো।সাধারণ জনের কাছে বুদ্ধ হয়ে যান ধম্ম ঠাকুর।কারন বৌদ্ধ ধর্মকে “সদ্ধর্ম”ও বলা হতো।ব্রাহ্মণ্য ধর্মের পুনরুত্থান কালে এই উৎসবকে কি গাজনে রূপান্তরিত করা হয়েছে?
শিব থাকলে শক্তি বা পার্বতী থাকেন।শিব-পার্বতীর মিলন উৎসবই তো গাজন।তাই এস্থলে শক্তির বিকল্প “কামিনা” কল্পিত হয়।

আরও পড়ুন -  অ-প্রতিদ্বন্দ্বী মাস্টারমশাই, বাধ্য ছাত্রের দল শুরু করে দিয়েছে স্ক্রুটনি আর দেওয়াল লিখন

কামিনা হলো কল্পতরু,নিষ্ঠার সাথে গাজন করলে নাকি মনোবাঞ্ছা পুর্ণ হয় — এই বিশ্বাস সংক্রমিত হয়।এর অনুকরণে চৈতালী গাজনেও কামিনা অন্তর্ভূক্ত করা হয়।
সুবর্ণরৈখিক নদী অববাহিকায় অতীত কালে কি বৌদ্ধ ধর্মের প্রভাব ছিল? এতদ অঞ্চলের দাঁতনে এবং সাঁকরাইল থানার পাথরাতে বৌদ্ধ বিহারের নিদর্শন পাওয়া গেছে।সুবর্ণরেখা নদী তীরে নয়াগ্রাম থানার রামেশ্বর মন্দির থেকে প্রায় ৫ কিমি গভীর জঙ্গলের মধ্যে তপোবন আশ্রম আছে।সেখানে বাল্মিকী মন্দিরের গড়ন অনেকটা বৌদ্ধস্তুপের মতো দেখা যায়।কোন সুদূর অতীতে কি এতদঞ্চলে বৌদ্ধ ধর্মের প্রভাব ছিল? অতীতের বুদ্ধযাত্রা উৎসব কি ক্রমে ধম্ম ঠাকুরের পূজায় পরিনত হয়েছে?কালক্রমে ধম্ম ঠাকুরের পূজা কি বৈশাখী গাজনে রূপান্তরিত হয়েছে?