তমাল নদী থেকে উদ্ধার মহিলার মৃতদেহ উদ্ধার, এলাকায় চাঞ্চল্য

260
তমাল নদী থেকে উদ্ধার  মহিলার মৃতদেহ উদ্ধার, এলাকায়  চাঞ্চল্য 1

নিজস্ব সংবাদদাতা, শালবনী :- পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার শালবনি ব্লকের বিষ্ণুপুর ২ অঞ্চলের মানকুড়ি এলাকায় তমাল নদী থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় এক মহিলার  মৃতদেহ উদ্ধারকে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায় । ঘটনাটি পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার শালবনীর ব্লকের মানকুড়ি ও বয়লা গ্রামের মাঝে তমাল নদীতে। মৃতার নাম পানি মুর্মু (৫৫)। বাড়ি শালবনীর বাঁধগোড়াতে।

আরও পড়ুন -  নেতা সাজার অবরোধ দ্বিতীয় দিনেও বহাল, নাকাল জঙ্গলমহল, দুর্ভোগে মাধ্যমিক উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থীরা

স্থানীয় সুত্রে জানা গিয়েছে স্থানীয়রা মাছ ধরার জন্য নদীতে আঁট বেঁধে রেখেছিল। সেই আঁটে মাছ পড়েছে কিনা দেখার জন্য এদিন সকালে স্থানীয়রা সেই আঁটের কাছে যেতেই দেখেন  এক মহিলার মৃতদেহ আটকে রয়েছে৷ তারা বিষয়টি সাথে সাথে শালবনী থানার পুলিশকে জানায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে শালবনী থানার পুলিশ ।পুলিশ মৃতদেহটি উদ্ধার করে মেদিনীপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের মর্গে ময়নাতদন্ত করার জন্য পাঠায় ।  পুলিশ খতিয়ে দেখার কাজ শুরু করেছে।

তবে ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় যথেষ্ট চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে । প্রাথমিক ভাবে পুলিশ জানিয়েছে, ওই মহিলা নদী পেরিয়ে তাঁর আত্মীয় বাড়ি গিয়েছিলেন বলে জানা গেছে রাতে ফেরার সময় কোনও ভাবে নদীতে পড়ে যান। মহিলা ইদানিং চোলাইয়ে আসক্ত ছিলেন। তবে ঘটনার সময় তিনি নেশাগ্রস্ত ছিলেন কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। ময়নাতদন্তের পরই তা পরিষ্কার হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ। স্থানীয় এক ব্যক্তি দাবি করেছিলেন মহিলার হাত-পা বাঁধা ছিল কিন্তু পুলিশ সেই দাবি উড়িয়ে দিয়ে বলেছেন এমন দাবির কোনও সত্যতাই নেই।

তমাল নদী থেকে উদ্ধার  মহিলার মৃতদেহ উদ্ধার, এলাকায়  চাঞ্চল্য 2