অক্টোবরেই হবে ফাইনাল সেমিস্টার, সংক্রমণ এড়াতে বাড়ি থেকেই পরীক্ষা দেওয়ার সুযোগ প্রার্থীদের

328

ওয়েব ডেস্ক : করোনা আবহে কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাইনাল সেমিস্টার বাতিল করতে সরব হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ কিন্তু রাজ্যের সেই দাবি নস্যাৎ করে সুপ্রিম কোর্টের তরফে আগামী ৩ মাসের মধ্যে চূড়ান্ত বর্ষের পরীক্ষা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। শীর্ষ আদালতের নির্দেশ মেনে সোমবারই কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে চূড়ান্ত বর্ষের ফাইনাল সেমিস্টারের দিনক্ষণ ঘোষণা করল শিক্ষা দফতর।

পরীক্ষার সূচী ঘোষণা না করলেও জানা গিয়েছে আগামী ১-১৮ অক্টোবরের মধ্যে কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়গুলির পরীক্ষার নেওয়া হবে৷ পাশাপাশি পরবর্তীতে শিক্ষা দফতরের তরফে দিনক্ষণ ঘোষণা করা হবে বলেই জানা গিয়েছে৷ তবে ফাইনাল সেমিস্টার নেওয়া হলেও এই পরিস্থিতিতে পরীক্ষার্থীদের স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখে পরীক্ষাকেন্দ্রের বদলে বাড়িতে বসেই পরীক্ষা দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছে। পাশাপাশি এদিন শিক্ষা দফতরের তরফে আরও জানানো হয়েছে, পরীক্ষার্থীরা চাইলে বই দেখেই পরীক্ষা দিতে পারবে।

এদিন উপাচার্যদের সাথে শিক্ষা দফতরের বৈঠকের বৈঠকের কথা ছিল। সে অনুযায়ী জানা গিয়েছে, সেপ্টেম্বরে নয় নয় বরং আগামী ১ -১৮ অক্টোবরের মধ্যে রাজ্যের সমস্ত কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে ফাইনাল ইয়ারের সেমিস্টারের আয়োজন করা হবে। সেই ফল প্রকাশিত হবে ৩১ অক্টোবরের মধ্যে। সব পরীক্ষাই হবে অনলাইন ও অফলাইন পদ্ধতিতে। পাশাপাশি আরও জানানো হয়, করোনা পরিস্থিতিতে এই মূহুর্তে পরীক্ষার্থীদের কলেজে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে না। সেকারণে বাড়িতে বসেই পরীক্ষা দিতে হবে৷ প্রয়োজনে বই দেখেও পরীক্ষা দিতে পারবে পড়ুয়ারা৷ পাশাপাশি আরও জানানো হয়েছে, যে সমস্ত কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলি সুপ্রিমকোর্টের নির্দেশের আগে ইতিমধ্যেই পরীক্ষা না নিয়ে ফল প্রকাশ করে ফেলেছে তাদের পুনরায় পরীক্ষার ব্যবস্থা নিতে হবে৷ এদিকে রাজ্য সরকারের এই নির্দেশের পর নড়েচড়ে বসেন প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়। তারা জানান, সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশের আগে হলেও নিয়ম মেনে সেখানে পরীক্ষা নিয়ে ফল প্রকাশ করা হয়েছে, ফলে তারা এই ফল বহাল রাখবেন।

অক্টোবরেই হবে ফাইনাল সেমিস্টার, সংক্রমণ এড়াতে বাড়ি থেকেই পরীক্ষা দেওয়ার সুযোগ প্রার্থীদের 1
আরও পড়ুন -  এবার গ্রাহকদের করোনা সংক্রান্ত সমস্ত তথ্য যোগাতে মাইক্রোসফট বাজারে আনলো COVID - 19 ট্র্যাকার