ক্রমশই কমছে শীতের প্রকোপ; কড়া নাড়ছে বসন্ত, সেই সাথেই ভারি বৃষ্টির চোখ রাঙানি

159
ক্রমশই কমছে শীতের প্রকোপ; কড়া নাড়ছে বসন্ত, সেই সাথেই ভারি বৃষ্টির চোখ রাঙানি 1
ক্রমশই কমছে শীতের প্রকোপ; কড়া নাড়ছে বসন্ত, সেই সাথেই ভারি বৃষ্টির চোখ রাঙানি 2

নিউজ ডেস্ক: ক্রমশই থিতিয়ে পড়েছে শীতের ব্যাটিং, শুধুমাত্র উইকেট পতনের পালা। প্যাভিলিয়ানে বসে ময়দানে নামার অপেক্ষায় প্রহর গুনছে বসন্ত। কলকাতা-সহ গোটা রাজ্যেই ক্রমশ বাড়ছে তাপমাত্রার পারদ। রাতে বা ভরের দিকে ঠান্ডার হাল্কা আমেজ থাকলেও শীত যে কার্যত শক্তি হারাচ্ছে তা বলাই যায়। তবে ভোরের দিকে কোথাও কোথাও কুয়াশার দাপট দেখা গিয়েছে।

অপরদিকে, বুধবার দক্ষিণবঙ্গের কয়েকটি জেলায় বৃষ্টির পূর্বাভাস জারি করেছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম-সহ পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতে বৃষ্টি হতে পারে। তবে কলকাতায় বৃষ্টির আপাতত সম্ভাবনা নেই বলেই জানিয়েছে হাওয়া অফিস। যদিও ইতিমধ্যেই সকালে জোর বৃষ্টি হয়ে গেছে মেদিনীপুরে, খড়্গপুরে হালকা বৃষ্টি হয়েছে। দুই মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রামের আকাশে জমেছে মেঘ, মেঘলা আবহাওয়া, কিছুটা ঠান্ডা ভাব আগের দিনের তুলনায়।

ক্রমশই কমছে শীতের প্রকোপ; কড়া নাড়ছে বসন্ত, সেই সাথেই ভারি বৃষ্টির চোখ রাঙানি 3

আলিপুর আবহাওয়া অফিস সূত্রে খবর, বুধবার কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ১৯.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ১ ডিগ্রি বেশি। শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ৩১.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ১ ডিগ্রি বেশি। শহরে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৯৭ শতাংশ, ন্যূনতম ৩৮ শতাংশ।

আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর, আসানসোলে তাপমাত্রা ১৪.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, বালুরঘাটের তাপমাত্রা ১১.৪ ডিগ্রি, বাঁকুড়ায় ১৪.৮ ডিগ্রি, ব্যারাকপুরে তাপমাত্রা নেমেছে ১৪.৮ ডিগ্রিতে,বহরমপুরে পারদ নেমেছে ১২.৮ ডিগ্রিতে, বর্ধমানের তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ১৬ ডিগ্রিতে, ক্যানিংয়ে তাপমাত্রা ১৯.৪ ডিগ্রি, কাঁথির পারদ নেমেছে ১৪ ডিগ্রিতে, কোচবিহারে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১.৬ ডিগ্রি, দার্জিলিঙের তাপমাত্রা ৫.২ ডিগ্রিতে, ডায়মন্ডহারবারে পারদ নেমেছে ২০.২ ডিগ্রিতে, দিঘায় তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ১৯ ডিগ্রি, দমদমের তাপমাত্রা ১৯.১ ডিগ্রি, হলদিয়ার তাপমাত্রা ২০.৩ ডিগ্রি, জলপাইগুড়িতে পারদ ছুঁয়েছে ১২.৪ ডিগ্রি, কালিম্পঙে ৭.৫ ডিগ্রি, কৃষ্ণনগরের ১৫ ডিগ্রি, মালদায় ১৬.৪ ডিগ্রি, মেদিনীপুরে তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ১৭.১ ডিগ্রিতে, পানাগড়ে ১২.২ ডিগ্রি, পুরুলিয়ায় ১৩.১ ডিগ্রি, সল্টলেকে ১৯.২ ডিগ্রি, শিলিগুড়ির তাপমাত্রা ১১.৮ ডিগ্রি, শ্রীনিকেতনে ১৩.২ ডিগ্রি।

উল্লেখ্য, ফেব্রুয়ারির শুরুতেই একেবারে জমিয়ে ইনিংস খেলতে দেখা গিয়েছে শীতকে। বিগত ১০ বছরে এটাই ছিল শীতলতম ফেব্রুয়ারি। আলিপুর আবহাওয়া দফতরের অধিকর্তা গণেশ কুমার দাস জানিয়েছিলেন, এই পরিস্থিতি বিরল, কিন্তু আগেও এই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। এর আগে ২০০৮ সালের ফেব্রুয়ারি মাসেও জমিয়ে শীত উপভোগ করেছিলেন বাংলার মানুষ। সেই সময়ের পর এবার ২০২১- এর ফেব্রুয়ারিতে পুরোনো আমেজ ফিরে পেল রাজ্যবাসী।