লকডাউনের প্রভাবে বাড়ছে না চেকের মেয়াদ, জানালো সুপ্রিমকোর্ট

46

ওয়েব ডেস্ক : করোনা সংক্রমণের জেরে গত মার্চ থেকে ৩ মাস গোটা দেশে লকডাউন করা হয়েছিল। আনলক ২ পর্যায়ে ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হলেও কন্টেইনমেন্ট জোন গুলিতে এখনও লকডাউন পরিস্থিতি অব্যাহত। তবে লকডাউনের প্রভাবে চেকের তিন মাস বৈধতার মেয়াদ না বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট। শুক্রবার এমনটাই স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন দেশের শীর্ষ আদালত। এবিষয়ে আদালতের তরফে যুক্তি দিয়ে বলা হয়, মেয়াদ বাড়ালে ব্যাঙ্কের কাজে অসুবিধা সৃষ্টি হবে। সেকারণে কোনোভাবেই চেকের মেয়াদ বাড়ানো সম্ভব নয়।

আরও পড়ুন -  সূর্য গ্রহনের দিনেই বড়সড় সাইবার হামলার মুখে পড়তে চলেছে ভারত, সতর্ক করল সাইফারমা

শুক্রবার এবিষয়ে প্রধান বিচারপতি শরদ অরবিন্দ বোবডের নেতৃত্বে সুপ্রিম কোর্টের তিন সদস্যের বেঞ্চে বিভিন্ন আইনের অধীনে থাকা সময়সীমা বৃদ্ধি সংক্রান্ত মামলার শুনানিতে সুপ্রিম কোর্টের আর্জি শুনে এই মন্তব্য করে আদালত। এরপই চেকের বৈধতা তিন মাসের বেশি না বাড়ানোর নির্দেশ দেয় সুপ্রিম কোর্ট। ব্যাঙ্কিং রেগুলেশন আইনের ৩৫এ ধারা অনুযায়ী রিজার্ভ ব্যাঙ্কের তরফে এর আগেই চেকের বৈধতার মেয়াদ তিন মাস পর্যন্ত নির্দিষ্ট করা হয়েছে। ফলে এই মূহুর্তে ফের মেয়াদ না বাড়ানো সিদ্ধান্ত নিয়েছে শীর্ষ আদালত৷ এবিষয়ে আদালত জানিয়েছে, লকডাউন চলাকালীনও যখন সারাদেশে চেকের ৩ মাসের মেয়াদ মেনে চলা হয়েছে, তবে এখন আর তা সংশোধনের কোনও প্রয়োজন নেই।

এদিকে গোটা দেশে প্রায় তিন মাস লকডাউন চলার পর এই মূহুর্তে লকডাউন শিথিল করার পরে দেশে অর্থনৈতিক পদক্ষেপের অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। এই পরিস্থিতিতে গত ১ জুন দেশজুড়ে চালু হয়েছে আনলক ১ এবং ১ জুলাই চালু হয়েছে আনলক ২। এর জেরে বিভিন্ন ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও বিনোদনের জায়গা ছাড়া স্বাস্থ্যবিধি মেনে খুলে গিয়েছে সব দোকানপাট শপিং মল প্রভৃতি। তবে কনটেনমেন্ট জোনগুলিতে কোনও ছাড় দেয়নি প্রশাসন। আগামী ৩১ জুলাই পর্যন্ত ওই সব এলাকায় কড়া লকডাউন বিধি মেনে চলতে হবে বলেও কেন্দ্রের তরফে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

লকডাউনের প্রভাবে বাড়ছে না চেকের মেয়াদ, জানালো সুপ্রিমকোর্ট 1