সোমবার রাজ্যে বাতিল ট্রেন পরিষেবা, যাত্রীরা স্টেশনে পৌঁছলে দায় নেবে না রেল, দাবি রেল কর্তৃপক্ষের

99

ওয়েব ডেস্ক : চলতি মাসেও রাজ্যে ফের সাপ্তাহিক লকডাউনের ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার। সে অনুযায়ী সোমবার রাজ্যে পূর্ণ লকডাউন। রাজ্যের আবেদনে সাড়া দিয়ে এদিন বিমান পরিষেবা সম্পূর্ণ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিমান কর্তৃপক্ষ। একই সাথে সোমবার রাজ্যে সমস্ত স্পেশাল ট্রেনগুলি বন্ধ রাখা হবে, এমনটাই জানিয়েছে রেল। তবে স্পেশাল ট্রেনগুলি বন্ধ থাকলেও রেল ও জরুরী পরিষেবার সাথে যুক্ত কর্মীদের জন্য শুধু মাত্র স্টাফ স্পেশালগুলি চলাচল করবে বলেই রেল কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে।

রাজ্যের আবেদনে সাপ্তাহিক লকডাউনের দিনগুলোতে স্পেশাল ট্রেন না চালানোর সিদ্ধান্ত আগেই নিয়েছিল রেল কর্তৃপক্ষ। ফলে সোমবার লকডাউনের দিনে হাওড়া, শিয়ালদহ, আসানসোল, খড়গপুর, মালদহ, শিলিগুড়ি সহ রাজ্যের বিভিন্ন বড় স্টেশনগুলি থেকে ট্রেন ছাড়া হবে না। এমনকি এইদিন অন্য রাজ্য থেকে কোনও ট্রেন এখানে এসে পৌঁছবে না। ফলে হাওড়া, শিয়ালদহ, খড়গপুর শিলিগুড়ি সহ একাধিক ডিভিশনে ট্রেন বাতিলের কথা পূর্ব, দক্ষিণ-পূর্ব ও উত্তর-পূর্ব সীমান্ত রেলের তরফে আগেভাগেই জানানো হয়েছে।

পাশাপাশি সোমবার যে সমস্ত ট্রেন আগামিকাল বাতিল থাকছে তার মধ্যে রয়েছে, আপ ও ডাউন হাওড়া-পাটনা এক্সপ্রেস, হাওড়া-নিউ দিল্লি এসি এক্সপ্রেস, শিয়ালদহ-নিউ আলিপুরদুয়ার স্পেশাল ট্রেন। হাওড়া-বারবিল স্পেশাল। বারবিল-হাওড়া স্পেশাল। হাওড়া-ভুবনেশ্বর স্পেশাল এবং ভুবনেশ্বর-হাওড়া স্পেশাল। শালিমার-পাটনা স্পেশাল ও পাটনা-শালিমার স্পেশাল। হাওড়া-যশবন্তপুর স্পেশাল ও যশবন্তপুর-হাওড়া স্পেশাল ইত্যাদি। এছাড়া এদিন বেশ কয়েকটি ট্রেন চললেও তা পশ্চিমবঙ্গে ঢুকবে না, অথবা এ রাজ্যের কোনও স্টেশনেই এদিন ট্রেন দাঁড়াবে না। ওই ট্রেনগুলির মধ্যে রয়েছে সেকেন্দ্রাবাদ-হাওড়া স্পেশাল, ভুবনেশ্বর-নয়াদিল্লি স্পেশাল এসি এক্সপ্রেস ইত্যাদি। এদের মধ্যে ভুবনেশ্বর-নয়াদিল্লি স্পেশাল ট্রেনটি হিজলি ও পুরুলিয়া স্টেশনে দাঁড়াবে না৷ পাশাপাশি এদিন সম্পূর্ণ বাতিল থাকবে হাওড়া-যোধপুর স্পেশাল ট্রেন।

আরও পড়ুন -  ২৫০কিলোমিটার পথ হেঁটে নবীন অঞ্জনার হাত ধরে ঘরের ঠিকানা পেল মহারাষ্ট্রের শ্রমিকেরা, খড়গপুর কে স্যালুট জানিয়ে হাসি মুখে বাড়ির পথে তিন পরিবার

এর আগে প্রথম লকডাউনে ট্রেন বাতিল না করায় যাত্রীরা কিভাবে গন্তব্যে পৌঁছাবে এই নিয়ে একটা চিন্তার বিষয় হয়েছিল। এরপরই এদিন যাত্রীদের জন্যে বিশেষ বাসের ব্যবস্থা করেছিল রাজ্য সরকার। রাস্তায় নামানো হয়েছিল বেশ কিছু ক্যাব, ট্যাক্সি। সেকারণে পরবর্তী লকডাউনে যাতে ট্রেন পরিষেবা বন্ধ রাখা হয় সেবিষয়ে রেল কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছিল রাজ্য সরকার। এরপর থেকেই লকডাউনের দিনগুলিতে স্টাফ স্পেশাল ছাড়া সমস্ত ট্রেন বন্ধ রাখা হয়৷ গত বেশ কয়েকটি লকডাউনে দেখা গেছে ট্রেন বন্ধ থাকলেও স্টেশনের বাইরে ভিড় জমতে থাকে যাত্রীদের৷ তাদের অনেকেই জানায়, লকডাউনে ট্রেন বন্ধ থাকবে তা তারা জানতেন না৷ সে কারণে রেল কর্তৃপক্ষের তরফে এবার একদিন আগেই লকডাউনে ট্রেন বন্ধের ঘোষণা করেন। পাশাপাশি রেলের তরফে আরও জানানো হয়, এরপরেও যদি কোনও যাত্রী স্টেশনে এসে পৌঁছয়, তবে তার দায় রেল নেবে না বলেই জানানো হয়েছে।

সোমবার রাজ্যে বাতিল ট্রেন পরিষেবা, যাত্রীরা স্টেশনে পৌঁছলে দায় নেবে না রেল, দাবি রেল কর্তৃপক্ষের 1