মুখ্যমন্ত্রীর ওপর ‘হামলার’ প্রতিবাদে উত্তরবঙ্গ জুড়ে বিক্ষোভ তৃণমূল কর্মী- সমর্থকদের

229
মুখ্যমন্ত্রীর ওপর ‘হামলার’ প্রতিবাদে উত্তরবঙ্গ জুড়ে বিক্ষোভ তৃণমূল কর্মী- সমর্থকদের 1

অশ্লেষা চৌধুরী: নন্দীগ্রামে গিয়ে চোট পেয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, তার প্রতিবাদে উত্তরের জেলায় জেলায় বিক্ষোভ তৃণমূল কর্মী-সমর্থকদের। পিছিয়ে নেই উত্তরের জেলাগুলিও। আরও এক পদক্ষেপ এগিয়ে বৃহস্পতিবার কোচবিহারে প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, রাজ্যপাল, শুভেন্দু অধিকারী, দিলীপ ঘোষের ছবি পুড়িয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করলেন তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকেরা।

কোচবিহার শহরের ১০ নম্বর ওয়ার্ডে বৃহস্পতিবার বিক্ষোভ দেখান তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মী সমর্থকেরা। শুধু বিক্ষোভ নয়, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, রাজ্যপাল, শুভেন্দু অধিকারী, দিলীপ ঘোষের ছবি পুড়িয়ে বিক্ষোভ দেখান তারা।

মুখ্যমন্ত্রীর ওপর ‘হামলার’ প্রতিবাদে উত্তরবঙ্গ জুড়ে বিক্ষোভ তৃণমূল কর্মী- সমর্থকদের 2

এ বিষয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের ১০ নম্বর ওয়ার্ডের সভাপতি শংকর দে সরকার জানান, “গতকাল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর যে হামলা হয়েছে তার প্রতিবাদে আজ আমাদের এই প্রতিবাদ। আমরা লাগাতার এই প্রতিবাদ কর্মসূচি চালিয়ে যাব।” তিনি আরও বলেন “রাজ্যপাল কোনও দলের হয়ে কাজ করা শোভা দেয় না। কিন্তু তিনি বারংবার বিশেষ এক রাজনৈতিক দলের হয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা তার প্রতিবাদ জানাতেই আমরা তাঁর ছবি আগুন দিয়ে পুড়িয়েছি।”

পাশাপাশি কোচবিহারের শীতলকুচি বিধানসভার খলিসামারীর সরকার হাটে ধিক্কার মিছিল সংগঠিত হল। এই ধিক্কার মিছিলে নেতৃত্ব দেন তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি তথা তৃণমূল কংগ্রেসের শীতলকুচি বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী পার্থপ্রতিম রায়।

অপরদিকে শিলিগুড়ি জংশনে তৃণমূল কর্মী-সমর্থকরা এই ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে গাড়ির টায়ার জ্বালিয়ে খানিকক্ষণ পথ অবরোধও করেন। এমনকি বিজেপির বিরুদ্ধে স্লোগানও দেন তারা। অন্যদিকে শিলিগুড়ির বাঘাযতীন পার্ক থেকে একটি ধিক্কার মিছিলের আয়োজন করে তৃণমূল যুব কংগ্রেস। এই মিছিলে পা মেলান শিলিগুড়ি বিধানসভার প্রার্থী ওম প্রকাশ মিশ্র সহ জেলা কমিটির অন্যান্য সদস্যরা। তাদের এই মিছিল এয়ারভিউ পর্যন্ত হয়।

নন্দীগ্রামের ঘটনা নিয়ে ওম প্রকাশ মিশ্র বলেন, ‘যেভাবে আমাদের নেত্রীর ওপর আঘাত হানা হল তা মেনে নেওয়া যায় না। এভাবে তৃণমূলকে আটকানো যাবে না। এই কাজ বিজেপি কর্মী সমর্থকদের। তারা বাংলায় সন্ত্রাস সৃষ্টি করার চেষ্টা করছেন।কারণ দিলীপ ঘোষ, শুভেন্দু অধিকারীরা বলেছিলেন নির্বাচন ঘোষণা হলে নির্বাচনী আচরণ বিধি চালু হলেই তারা নাকি দেখে নেবেন।এটাই তাদের আসল রুপ তা গোটা বাংলা দেখে নিল।’ ওদিকে ডাব গ্রাম ফুলবাড়ী বিধানসভা কেন্দ্রের এক নম্বর ফুলবাড়ী অঞ্চলের তৃণমূল কংগ্রেসের ধিক্কার মিছিল সংগঠিত হয়। এদিন ফুলবাড়ির এক নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের অম্বিকানগর এলাকা থেকে এই ধিক্কার মিছিল বের হয়, মিছিলে অংশগ্রহণ করেন এলাকার তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী গৌতম দেব।

পাশাপাশি তৃণমূল যুব সংগঠনের জলপাইগুড়ি‌র জেলা কমিটির সদস্য‌রা নন্দী‌গ্রামে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর হামলার ঘটনার প্রতিবাদে জলপাইগুড়ি কোতোয়ালি থানার সামনে বিক্ষোভ দেখান। বৃহস্পতিবার দুপুরে তৃণমূল যুব সংগঠনের জলপাইগুড়ি‌র জেলা সভাপতি সৈকত চ‍্যাটার্জি‌র নেতৃত্বে এই বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়। রাস্তায় টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন শতাধিক যুব তৃণমূল কর্মী। সৈকত চ‍্যাটার্জি বলেন, নন্দী‌গ্রামে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মনোনয়ন পত্র দাখিল করা‌র পর বিজেপি-র হৃদকম্পন শুরু হয়ে গেছে। তাঁর দাবিতে এখানে এক লক্ষ ভোটে হারতে চলেছে বিজেপি। অভিযোগ, নন্দীগ্রামে পুলিশ নিষ্ক্রিয় করে দিয়ে জটলা তৈরি করে পরিকল্পিতভাবে এই হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

এছাড়াও, বুধবার রাতেই উত্তর দিনাজপুর জেলার রায়গঞ্জ ব্লকের শ্যামপুর অঞ্চল তৃনমূল কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন তৃনমূল কংগ্রেস কর্মী সমর্থকেরা। মমতা বন্দোপাধ্যায়ের উপর হামলার ঘটনায় বিজেপিকে অভিযুক্ত করে নন্দীগ্রামের বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীর কুশপুত্তলিকা দাহ করে বিক্ষোভ দেখালেন তৃনমূল কর্মী সমর্থকেরা। ধ্বনি ওঠে বিজেপি মুর্দাবাদ, শুভেন্দু অধিকারী মুর্দাবাদ। সেইসাথেই বৃহস্পতিবারেও উত্তর দিনাজপুর জেলার রায়গঞ্জ শহরে মুখে কালো কাপড় বেঁধে এবং বুকে কালো ব্যাজ লাগিয়ে মৌন মিছিল করল রায়গঞ্জ শহর তৃনমূল কংগ্রেস। মিছিলের নেতৃত্ব দেন রায়গঞ্জ পুরসভার চেয়ারম্যান সন্দীপ বিশ্বাস এবং ভাইস চেয়ারম্যান অরিন্দম সরকার। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন রায়গঞ্জ ব্লক তৃনমূল কংগ্রেস সভাপতি মানস ঘোষ, রায়গঞ্জ শহর তৃনমূল কংগ্রেস সভাপতি প্রিয়োতোষ মুখার্জি সহ অসংখ্য তৃনমূল কর্মী সমর্থক।

Previous articleরাজনীতিতে মিঠুনের মতো ভাল মানুষের প্রয়োজন: অভিনেতা অঙ্কুশ
Next articleমাতৃত্বকালীন ছুটিতে খড়গপুরের শিক্ষিকা, নির্বাচনের কাজ থেকে অব্যহতি চাইলে শাস্তিমূলক ব্যবস্থার হুমকি! কমিশনের দ্বারস্থ ঐক্য মঞ্চ