মেদিনীপুর শহরে রাত ভর অভিযান চালিয়ে ভেঙে পড়া বাড়ি থেকে ২দেহ উদ্ধার করল এনডিআরএফ

466
মেদিনীপুর শহরে রাত ভর অভিযান চালিয়ে ভেঙে পড়া বাড়ি থেকে ২দেহ উদ্ধার করল এনডিআরএফ 1

নিজস্ব সংবাদদাতা: অবশেষে উদ্ধার হল ভেঙে পড়া ভবনের ধ্বংস স্তুপ থেকে ২ শ্রমিকের দেহ। প্রায় ৫ঘন্টার চেষ্টায় ইংরেজ আমলের ধ্বসে পড়া বিশালাকার ভবনের চুন সুরকি আর ইটের স্তুপের ভেতর থেকে দুটি দেহ উদ্ধার করতে সক্ষম হয় জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী বা এনডিআরএফ। মঙ্গলবার বিকাল ৬টা থেকেই উদ্ধার কার্যে সামিল হয়েছিল পুলিশ ও দমকলের অসামরিক প্রতিরক্ষা বাহিনীর জওয়ানরা কিন্তু খুব একটা এগুতে পারা যায়নি। অবশেষে ডাক পড়ে এনডিআরএফের। রাত ১২টা নাগাদ কাজ শুরু করেন তাঁরা। অবশেষে ভোর সাড়ে তিনটা নাগাদ দেহের সন্ধান মেলে।

পুলিশ জানিয়েছে মৃতরা হলেন শুভদীপ প্রামানিক ও রাম সরেন। দুজনেরই বাড়ি গড়বেতা থানা এলাকার ধাদিকা নামক এলাকায়। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে বুধবার ভোর ৩.৩৫ নাগাদ প্রথমে শুভদীপ ও ৪টা নাগাদ রামের দেহ উদ্ধার হয়। উদ্ধার হওয়া দেহ গুলি ময়নাতদন্তের জন্য মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজে পাঠানো হয়েছে। আপাতত ওই সাবেক জেলা ভূমি ও ভূমি রাজস্ব দপ্তরটি ভেঙে ফেলার কাজ স্থগিত রাখা হয়েছে।

উল্লেখ্য এই বৃটিশ আমলে তৈরি হওয়া ভবনটি বছর খানেক আগেও জেলার ভূমি ও ভূমি রাজস্ব সংক্রান্ত দপ্তর হিসাবে কাজ করেছে। সম্প্রতি সেই দপ্তর স্থানান্তরিত করা হয়েছে পাশেই গড়ে তোলা নতুন ভবনে। এরপরই ধাপে ধাপে ওই পুরানো কার্যালয় থেকে জিনিসপত্র সরানোর কাজ শুরু হয়। পরবর্তী পরিকল্পনা ছিল ভবনটিকে ভেঙে ফেলা। কয়েকদিন ধরেই সেই কাজ চলছিল। মঙ্গলবার দুপুরে অঝোর ধারায় বৃষ্টি হচ্ছিল। সেইসময় ওই অফিসের মধ্যে কাজ করছিলেন জনা ২৫ শ্রমিক। হঠাৎ বিকট শব্দে হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ে হাজার বর্গ ফুটের বাড়ির ছাদ ও দেওয়াল। ছুটে পালানোর চেষ্টা করে কর্মরত শ্রমিকরা। একদম ভেতরের দিকে থাকা চারজন শ্রমিকের ২জন বেরিয়ে আসতে পারলেও বাকি ২জন আটকে রয়ে যায় ভেতরে।

আরও পড়ুন -  আত্মীয়ের অপর্যাপ্ত ঘর, নৌকাতেই কোয়ারেন্টাইনে ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন পুরানো ভবনের কড়ি বর্গা দেওয়া ইট সুরকির পেটাই করা বিশালাকার ছাদের পুরো চাঙড়টাই মাঝখানে ধ্বসে পড়েছে হুড়মুড়িয়ে আর তার অভিঘাতে ভেঙে পড়েছে চারপাশের দেওয়ালের অংশ। ফলে ভেতরে ঢোকার রাস্তা কার্যত বন্ধ হয়ে গেছে।
জরাজীর্ণ ভগ্নপ্রায় বাড়ির ভেতরে ঢুকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। চারটি জেসিবি পেলোডার দিয়ে দিয়ে বাড়ি ভেঙে ঢোকার চেষ্টা করছিল ঘটনাস্থলে রয়েছে দমকল ও পুলিশের বিশাল বাহিনী। কিন্তু বৃষ্টি বহাল থাকায় ও অন্ধকার হয়ে যাওয়ায় আশঙ্কা ছিল ফের না কোনও অংশ ভেঙে পড়ে। এরপরই তলব করা হয় এনডিআরএফকে। তারাই উদ্ধার করে দেহ ২টি। ভেঙে পড়া কড়ি বর্গা ইটের আঘাতে থেঁতলে গিয়েছে দেহ ২টি। অনেক আগেই মৃত্যু হয়েছে তাঁদের।

মেদিনীপুর শহরে রাত ভর অভিযান চালিয়ে ভেঙে পড়া বাড়ি থেকে ২দেহ উদ্ধার করল এনডিআরএফ 2