কেন গ্রেপ্তার নয় শুভেন্দু, মুকুল? প্রশ্ন খোদ ম্যাথু স্যামুয়েলরই

76
Advertisement

নিউজ ডেস্ক: নারদ মামলায় গ্রেপ্তার তিন তৃণমূল নেতা, অথচ সেখানে নাম নেই শুভেন্দু ও মুকুল রায়ের।এই নিয়েই প্রশ্ন তুললেন ম্যাথু স্যামুয়েল। তিনি নারদ মামলায় এই নেতাদের স্টিং অপারেশন করেছিলেন। এই মামলায় তিনি বলেছেন, সিবিআই চারজনকে গ্রেফতার করায় তিনি খুশি। কিন্তু গ্রেফতারদের মধ্যে শুভেন্দু অধিকারী ও মুকুল রায় নেই কেন, সেই প্রশ্ন তুলেছেন তিনি।

Advertisement

এছাড়াও ম্যাথু স্যামুয়েল বলেছেন, তাঁর কাছে যে খবর রয়েছে, তাতে শুভেন্দু অধিকারি ও মুকুল রায়ও টাকা নেওয়ার কথা স্বীকার করেছিলেন। এরপরও তাঁকে গ্রেফতার করা হল না,সেই প্রশ্ন তুলেছেন নারদ-কর্তা। তিনি বলেছেন, সুবিচার পেতে দেরি হল অনেকটাই। কিন্তু দেরি হলেও ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। চার জন অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এতে আমি সন্তুষ্ট। কিন্তু শুভেন্দু অধিকারী ও মুকুল রায় আমার কাছ থেকে টাকা নিয়েছিলেন। তা তো ক্যামেরাতেও ধরা পড়েছে। তাহলে তাঁকে গ্রেফতার করা হল না কেন।

Advertisement
Advertisement

উল্লেখ্য,২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনের আগে নারদ কাণ্ড প্রকাশ্যে আসে। এই ভিডিওতে তৃণমূলের মন্ত্রী, সংসদ সদস্য এবং বিধায়কদের অর্থ নিতে দেখা গিয়েছিল। এই স্টিং অপারেশনটি করেছিলেন ম্যাথু স্যামুয়েল।

এটি প্রকাশিত হওয়ার পরে, রাজ্যে প্রচুর শোরগোল পড়ে যায় এবং মামলাটি হাইকোর্টেও পৌঁছেছিল। এর পর মামলার তদন্ত ভার সিবিআইয়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়। এই নারদ কাণ্ডেই ফিরহাদ হাকিম, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, তৃণমূল কংগ্রেসের বিধায়ক মদন মিত্র এবং প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের নাম প্রকাশিত হয়েছিল।

সোমবার সকালে নারদ-মামলায় তৃণমূল কংগ্রেসের তিন নেতা-মন্ত্রীকে সিবিআই গ্রেফতার করে। এই তিনি নেতা মত্রীর মধ্যে রয়েছেন,ফিরহাদ হাকিম, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, মদন মিত্র। এদের গ্রেপ্তার করে নিজাম প্যালেসে তুলে নিয়ে আসে সিবিআই। সেই সঙ্গে আনা হয় শোভনকেও।

এই ঘটনার কিছুক্ষণপরই নিজাম প্যালেসে পৌঁছে যান মুখ্যমন্ত্রী। সূত্রের দাবি, তিনি সিবিআই আধিকারিককে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, তিনজনকে গ্রেফতার করলে তাঁকেও গ্রেফতার করতে হবে।

সূত্র অনুযায়ী, রাজ্যপালের কাছ থেকে অনুমতি পাওয়ার পরই নারদকাণ্ডে চার অভিযুক্তকে সোমবার ব্যাঙ্কশাল আদালতে চার্জশিট পেশ করবে সিবিআই। এই চারজনের ছাড়াও, এই মামলায় অভিযুক্ত সাসপেন্ডেড আইপিএস অফিসার এসএমএইচ মির্জার বিরুদ্ধেও আদালতে চার্জশিট পেশ করবে সিবিআই।

আর এদিকে নিজাম প্যালেসের বাইরে লাগাতার বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন তৃণমূল সমর্থকেরা। নিজাম প্যালেসে ইট ও পাথর ছুড়ছেন তারা। তাদের আটকাবার জন্য মোতায়েন করা হয়েছে সিআরপিএফ।কিছুক্ষণ পরেই চার অভিযুক্তকে কোর্টে হাজির করার কথা ছিল, কিন্তু তৃণমূল সমর্থকদের এই বিক্ষোভের মাঝে তাদের কোর্টে হাজির করা অসম্ভব বলে মনে হচ্ছে।